ভারত ও ফ্রান্সের মধ্যে ১৪ চুক্তি সই, ইন্দো-ফরাসি অংশীদারিত্ব শতাব্দী প্রাচীন

ভারত ও ফ্রান্সের মধ্যে ১৪ চুক্তি সই হয়েছে। আজ (শনিবার) নয়াদিল্লিতে হায়দরাবাদ হাউসে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ও ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইম্যানুয়েল ম্যাক্রোঁর মধ্যে দ্বিপক্ষীয় বৈঠক হয়। পরে এক যৌথ সংবাদ সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি দু’দেশের মধ্যে ১৪ চুক্তি সই হওয়ার কথা জানান।

ভারত ও ফ্রান্সের মধ্যে আজ নিরাপত্তা, পরমাণু শক্তি, শিক্ষা, সংস্কৃতি, পরিবেশ, নগরোন্নয়ন এবং তথ্য আদানপ্রদানসহ অন্য ক্ষেত্রে ১৪ দ্বিপাক্ষিক চুক্তি সই হয়।

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি বলেন, ভারত ও ফ্রান্সের মধ্যে অংশিদারিত্ব শতাব্দী প্রাচীন। ভারত ও ফ্রান্স সন্ত্রাসবাদ ও মৌলবাদের বিপদ মোকাবিলা করতে একসঙ্গে কাজ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইম্যানুয়েল ম্যাক্রোঁ বলেন, ‘আমি মনে করি আমাদের মধ্যে ভালো সম্পর্ক রয়েছে। ভারত এবং ফ্রান্সের মধ্যে সন্ত্রাসবাদ এবং চরমপন্থা নির্মূলে একযোগে কাজ করার সমঝোতা হয়েছে।

ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়য়ের মুখপাত্র রবীশ কুমার জানান, ১৯৯৮ সালে হওয়া দ্বিপাক্ষিক ‘স্ট্র্যাটেজিক পার্টনারশিপ’ আরো মজবুত করা নিয়ে আলোচনা হয়েছে।

ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট গতকাল (শুক্রবার) রাতে চার দিনের সফরে ভারতে পৌঁছান। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি প্রটোকল ভেঙে বিমানবন্দরে তাকে আলিঙ্গন করে স্বাগত জানান।

আজ সকালে ফ্রান্সের প্রেসিডেন্টকে গার্ড অব অনার দেয়া হয়। এসময় প্রেসিডেন্ট ভবনে প্রেসিডেন্ট রামনাথ কোবিন্দ ও তার স্ত্রী সবিতা কোবিন্দ এবং প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিসহ অন্যরা উপস্থিত ছিলেন।

প্রেসিডেন্ট ইম্যানুয়েল ম্যাক্রোঁ ১২ মার্চ বারানসীতে গঙ্গা আরতিতে অংশ নেবেন। ম্যাক্রোঁর সঙ্গে এ সময় কাশীতে প্রধানমন্ত্রী মোদিও উপস্থিত থাকবেন। প্রেসিডেন্ট ইম্যানুয়েল ম্যাক্রোঁ তার স্ত্রীকে নিয়ে আগ্রার বিশ্বখ্যাত তাজমহল দেখতেও যাবেন।

You Might Also Like