হাতিয়ায় ফ্লাইঅ্যাশ বোঝাই জাহাজ ডুবি

নোয়াখালীর দ্বীপ উপজেলা হাতিয়ার মেঘনা নদীতে ফ্লাইঅ্যাশ বোঝাই একটি জাহাজ ডুবে গেছে। এমভি নাকিব রোহান নামের এই পণ্যবাহী জাহাজটি লক্ষীপুরের চর গজারিয়ায় নোঙর করা ছিলো। মালবাহী অপর একটি জাহাজ সেটিকে সজোরে ধাক্কা দেওয়ায় সেটির সামনের অংশ ফেটে যায় এবং নোঙর ছিড়ে হাতিয়ার নলের চরে এসে ডুবে যায়।

কোস্টগার্ডের হাতিয়া স্টেশন কমান্ডার লেফটেন্যান্ট আসিফ মো. অনিক রোববার (০৪ মার্চ) বেলা ১১টায় জাহাজ ডুবির বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, শনিবার রাতে এমভি নাকিব রোহান নামের মালবাহী জাহাজ ডুবে যাওয়ার খবর পান তারা।

ডুবে যাওয়া কার্গো জাহাজটির মাস্টার মো: ইসলাম শেখ জানান, এক হাজার ৬৩ মেট্রিক টন ফ্লাইঅ্যাশ বোঝাই করে জাহাজটি মাস্টার ও নাবিকসহ ১১ জন কর্মী নিয়ে গত সোমবার খুলনার নোয়াপাড়া থেকে চট্টগ্রামের উদ্দেশে রওয়ানা দেয়। পথে বৃহস্পতিবার লক্ষীপুরের চর গজারিয়ার পাইলট হাউজের কাছে নোঙর করে। এদিন দুপুর একটার দিকে জাহাজটিকে এমভি এমএ বেপারী নামের অপর একটি মালবাহী জাহাজ সজোরে ধাক্কা দেয়। এতে নোঙর করা জাহাজটির সামনের অংশ ফেটে যায় এবং নোঙর ছিড়ে যায়। জাহাজটি ¯্রােতের টানে সরে যেতে থাকে এবং ডুবে যাওয়ার উপক্রম হলে মাস্টার ও নাবিকসহ সবাই হাতিয়ার নলের চরে এসে নেমে যান। শনিবার রাতে জাহাজটি পুরোপুরি ডুবে যায়।

হাতিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কামরুজ্জামান শিকদার জানান, এমভি নাকিব রোহান নামের একটি মালবাহী জাহাজ ডুবে যাওয়ার বিষয়ে জাহাজটির মাস্টার মো. ইসলাম শেখ থানায় সাধারণ ডায়েরি করেন। এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

You Might Also Like