মহাকাশে যেয়ে উচ্চতা বাড়ার দাবি নভোচারীর!

জাপানের এক নভোচারী জানিয়েছেন, আন্তর্জাতিক মহাকাশ কেন্দ্রে তিন সপ্তাহ থাকার পর তার উচ্চতা ৯ সেন্টিমিটার (৩.৫ ইঞ্চি) বেড়ে গেছে। অবশ্য পরে দ্বিতীয় টুইটে তিনি জানিয়েছেন, ৯ নয় বরং ২ সেন্টিমিটার বেড়েছে তার উচ্চতা।

সোমবার নিজের টুইটার পেজে নরিশিগে কানাই লিখেছিলেন তিনি এখন ভয় পাচ্ছেন জুনে ভূপৃষ্ঠে ফেরার সময় রাশিয়ার সয়্যূজ নভোযানে তিনি আঁটবেন কিনা।

মহাকাশে যাওয়ার পর নভোচারীদের উচ্চতা গড়ে দুই থেকে পাঁচ সেমি বেড়ে যায়। মহাকাশে মাধ্যাকর্ষণ শক্তির অভাবে মানুষের মেরুদণ্ডের হাড় প্রসারিত হওয়ায় এই উচ্চতা বাড়ে। তবে পৃথিবীতে ফেরার পর সেই বাড়তি উচ্চতা কমে নভোচারী স্বাভাবিক উচ্চতায় ফিরে আসেন।

নরিশিগে লিখেছিলেন, ‘সবাইকে সুপ্রভাত। আজ আমি একটি বড় ঘোষণা দিতে চাই। মহাকাশে আমাদের উচ্চতা মাপা হয়েছে। ওয়াও, আমি ৯ সেন্টিমিটার লম্বা হয়ে গেছি। আমি যেন লতার মত বেড়ে গেছি। স্কুলের পর এমন হয়নি। আমার ভয় হচ্ছে ফেরার সময় সয়্যূজে আমি আঁটবো কিনা।’

নরিশিগের এই টুইটের পর সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ব্যাপক আলোচনা শুরু হয়ে যায়।

বুধবার দ্বিতীয় আরেকটি টুইটে নরিশিগে জানিয়েছেন, আন্তর্জাতিক মহাকাশ কেন্দ্রের রুশ কমান্ডার আন্তন শ্যকাপলিরভ এতে সন্দেহ করলে তিনি ফের উচ্চতা মাপেন এবং দেখতে পান ৯ নয় বরং ২ সেন্টিমিটার উচ্চতা বেড়েছে।

তিনি লিখেছেন, ‘তাই এটা ছিল মাপার ভুল? কিন্তু দেখা যাচ্ছে অনেকে এটা নিয়ে কথা বলছেন। আমার মেরুদন্ডে কোনো ব্যাথা নেই এবং আমার ঘাড় ও কাঁধের ব্যাথা চলে গেছে। তাই আমার কাছে মনে হয়েছিল আমি ৯ সেন্টিমিটার লম্বা হয়ে গেছি। ফ্লাইট কমান্ডার শ্যকাপলিরভ বিষয়গুলো জানতেন, তিনি বেশ অভিজ্ঞ।’

আগের টুইটের জন্য ক্ষমা প্রার্থণা করে নরিশিগে লিখেছেন, ‘এ ধরণের ভুয়া সংবাদ দেওয়ার জন্য আমি দুঃখিত।’

You Might Also Like