হোম » ২০ বছর মানসিক চিকিৎসা নিয়েছিলেন ডায়ানার ছেলে

২০ বছর মানসিক চিকিৎসা নিয়েছিলেন ডায়ানার ছেলে

ঢাকা অফিস- Monday, April 17th, 2017

নিজের মায়ের মৃত্যু ভুলতে প্রিন্সেস ডায়ানার ছেলে প্রিন্স হ্যারিকে ২০ বছর মানসিক চিকিৎসকের পরামর্শে চলতে হয়েছে। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম টেলিগ্রাফকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে এ কথা বলেছেন হ্যারি।

হ্যারি জানিয়েছেন, মায়ের মৃত্যুর পরের দুটি বছর দুটি মানসিকভাবে পুরোপুরি বিপর্যস্ত ছিলেন। ২০ বছর বয়সের পরে যেয়ে ধীরে ধীরে তিনি সেই শোক কাটাতে সক্ষম হন।

জীবনের একটা দীর্ঘ সময় কাউন্সেলিংয়ে কাটালেও বর্তমানে খুব ভালো অবস্থায় আছেন জানিয়ে ৩২ বছর বয়সী হ্যারি আরো বলেন, ‘বক্সিং আমাকে বাঁচিয়ে দিয়েছে এবং এর মাধ্যমেই আমি আমার ভেতরের ক্ষোভকে দমন করতে পেরেছি।’

টেলিগ্রাফ জানিয়েছে, নিজের জীবনের এসব সত্য ঘটনা থেকে মানসিক স্বাস্থ্য সমস্যায় আক্রান্ত মানুষরা স্বাভাবিক বাস্তবতায় ফিরে আসতে উৎসাহী হয় সেজন্য প্রিন্স হ্যারি এই সাক্ষাৎকার দিয়েছেন। বড় ভাই প্রিন্স উইলিয়াম ও তার স্ত্রী কেট মিডলটনের মতোই হ্যারি চলতি বছর লন্ডন ম্যারথনের দাতব্য সংস্থা ‘হেডস টুগেদার’ মানসিক স্বাস্থ্য বিষয়ক সচেতনতা প্রোগ্রামের পৃষ্ঠপোষকতা করছেন।

টেলিগ্রাফের সাংবাদিক ব্রায়নি গর্ডনকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে হ্যারি বলেছেন, ‘ আমি নিরাপদেই বলতে পারি, ১২ বছর বয়সে মাকে হারানোর পর এবং এরপর গত ২০ বছর আমার সব আবেগ বর্জনের কারণে কেবল আমার ব্যক্তিগত জীবনই নয় বরং কাজকর্মেও বেশ প্রভাব পড়েছিল।’

তিনি বলেন, ‘ যখন বিভিন্ন দিক থেকে সব ধরণের দুঃখ, মিথ্যা ও ভুল বুঝাবুঝি আমাকে গ্রাস করছিল তখন আমি একাধিক উৎসব-অনুষ্ঠানে মানসিকভাবে ভেঙ্গে পড়ার একেবারে কাছাকাছি চলে গিয়েছিলাম।’

১৯৯৭ সালে প্যারিসে এক সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হন প্রিন্সেস ডায়ানা। তখন কনিষ্ঠ ছেলে হ্যারি বয়স ছিল ১২ বছর।