হাঁটা সুবিধার বাইক! (ভিডিও)

শিরোনাম পড়ে নিশ্চয় অবাক হয়েছেন। ভাবছেন, এ আবার কেমন বাইক! তাছাড়া বাইক তো চড়ে বসে থাকার যান, হাঁটা কিভাবে সম্ভব?

তাহলে পরিচিত হয়ে নিন, এমন এক বাইকের সঙ্গে, যে বাইকে আপনি হাঁটতে পারবেন। লোপিফিট বাজারে নিয়ে এসেছে ইলেকট্রিক ওয়াকিং বাইক। এই বাইকে বসে থাকা যাবে না, বরঞ্চ হাঁটতে হবে। আর এজন্য এই বাইকের মধ্যে যুক্ত করা হয়েছে ট্রেডমিল!

সুস্বাস্থ্য পেতে অনেকেই জিমে গিয়ে ট্রেডমিলে হেঁটে থাকেন। তবে ট্রেডমিল বলা যায় এবার জিমের বাইরে চলে এসেছে লোপিফিটের কল্যানে। তাদের ওয়াকিং বাইকে ট্রেডমিল থাকায় বাইকেই হাঁটা যাবে। স্কুটার, ট্রেডমিল এবং ইলেকট্রিক বাইট এর তিনটির সমন্বিত সুবিধা যোগ করা হয়েছে বাইকটিতে।

লোপিফিট ইলেকট্রিক ওয়াকিং বাইট ৩০ থেকে ৫০ কিলোমিটার চলতে সক্ষম ১ বারের চার্জেই। গিয়ারের গতি পরিবর্তন করা যাবে। ঘণ্টায় ৪-১৭ মাইল গতিতে এটি চলতে পারে।

এই ওয়াকিং বাইকের ট্রেড মিলের নিচে আছে সেন্সর। আপনি যখন ট্রেড মিলের ওপরে দাঁড়িয়ে সামনের দিকে হাঁটতে শুরু করবেন অমনি সাইকেলটির ইলেকট্রিক ডিভাইসে সিগন্যাল পৌঁছে যাবে। ফলে চালু হয়ে যাবে মোটর। এই মোটর আপনার হাঁটার গতি বজায় রাখবে। আপনি যদি দাঁড়িয়ে থাকেন তবে চলতে থাকবে সাইকেলটি। এজন্য আছে ফ্রি হুইল ফাংশন।

বাইকটির হাতলে আছে ছোট আকারের ডিসপ্লে। যেখানে বাইকের গতি, ব্যাটারির চার্জের পরিমাণ জানা যাবে। বেশ কয়েকটি ডিজাইনের ইলেকট্রিক ওয়াকিং বাইক যুক্তরাষ্ট্র, ম্যাক্সিকো, ক্যারিবিয়ান বাজারে এনেছে লোফিফিট। দাম ২৪৯৫ ডলার। বাংলাদেশি টাকায় মূল্য দাঁড়ায় প্রায় ২ লাখ টাকা।

You Might Also Like