হত্যা মামলায় বেগম জিয়ার বিরুদ্ধে চার্জশিট চূড়ান্ত

রাজধানীর যাত্রাবাড়ীতে যাত্রীবাহী বাসে পেট্রোল বোমায় হতাহতের ঘটনায় দায়ের করা মামলার তদন্ত শেষ হয়েছে। বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া, যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবীর রিজভীসহ প্রায় ৩৮ নেতাকর্মীকে আসামি করে চার্জশিট চূড়ান্ত করা হয়েছে। চলতি মাসের শেষের দিকে আদালতে তা দাখিল হবে। মামলার কার্যক্রমও শুরু হবে বলে নির্ভরযোগ্য সুত্র জানিয়েছে।

সোমবার সচিবালয়ে মন্ত্রিসভার নিয়মিত বৈঠকের পর অনানুষ্ঠানিক আলোচনায় খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে দায়ের করা সব মামলার তদন্ত দ্রুত শেষ করতে স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীকে নির্দেশ দেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। গত ২৩ জানুয়ারি রাতে যাত্রাবাড়ীতে গ্লোরী পরিবহনের একটি বাসে পেট্রোল বোমা হামলার ঘটনায় ৩০ জন দগ্ধ হন। পরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় একজন মারা যান। এ ঘটনায় বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে হুকুমের আসামি করে বিশেষ ক্ষমতা আইনসহ যাত্রাবাড়ী থানায় দুটি মামলা করা হয়। ওই মামলায় ২০ দলীয় জোটের আরো ৬৮ নেতাকর্মীকে আসামি করা হয়েছিল।

স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেন, যাত্রাবাড়ীতে গাড়িতে আগুন দেওয়ার ঘটনায় দায়ের করা মামলার তদন্ত কার্যক্রম সম্পন্ন হয়েছে। এই ঘটনায় যাদের সংশ্লিষ্টতা পাওয়া গেছে, তাদের কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না।

গুলশান থানার ওসি রফিকুল ইসলাম বলেন, খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলার তদন্ত কার্যক্রম স্বাভাবিকভাবে এগিয়ে চলছে। আর চাঞ্চল্যকর ঘটনা হিসেবে যাত্রাবাড়ী থানা থেকে মামলাটির তদন্তভার ন্যস্ত হয় ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের কাছে। গোয়েন্দা কর্মকর্তারা হামলার সঙ্গে সরাসরি যুক্ত কয়েকজনকে গ্রেফতার করেন। তাদের মধ্যে সোহাগ, লিটন ওরফে সাব্বির, রফিকুল ইসলাম ওরফে মাসুম ও নজরুল ইসলাম আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে। তাদের জবানবন্দিতে নৃশংস এই ঘটনার পরিকল্পনা থেকে শুরু করে হামলার শেষ পর্যন্ত উঠে আসে।

অপরদিকে গত ৫ জানুয়ারির পর থেকে দেশব্যাপী সহিংসতা, অগ্নিসংযোগের ঘটনায় কুমিল্লা, পঞ্চগড়সহ বিভিন্ন থানায় খালেদা জিয়াকে হুকুমের আসামি করে বেশ কিছু মামলা হয়েছে। গুলশানে নৌ-পরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খানের মিছিলে হামলার ঘটনায় দায়ের করা মামলায় খালেদা জিয়াকে হুকুমের আসামি করা হয়। এছাড়া বিএনপি চেয়ারপারসনের বিরুদ্ধে আরো পাঁচটি মামলা রয়েছে।

You Might Also Like