স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের রদবদল : হাসপাতাল শাখার নতুন পরিচালক ফরিদ

দুর্নীতি ও অনিয়মসহ নানা অভিযোগের মধ্যে ওএসডি করা হলো স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের হাসপাতাল শাখার পরিচালক ডা. আমিনুল হাসানকে। তার জায়গায় নতুন পরিচালক হিসেবে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে ডা. ফরিদ হোসেন মিয়াকে।

বৃহস্পতিবার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় সূত্রে এই তথ্য জানা গেছে।

নতুন নিয়োগ পাওয়া পরিচালক ফরিদ হোসেন মাইক্রো ব্যাকটেরিয়াল ডিজিজ কন্ট্রোলের (এমবিডিসি) উপপরিচালক ছিলেন। এর আগে মাদারীপুরের সিভিল সার্জনও ছিলেন তিনি।

করোনা টেস্টের জন্য অনুমোদনহীন হাসপাতাল রিজেন্টের সঙ্গে চুক্তির বিষয়ে ডা. আমিনুলের দিকে অভিযোগের আঙুল ওঠায় তাকে সরিয়ে দেয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় বলে জানা গেছে। আমিনুল ছাড়াও আরও বেশ কয়েকজন কর্মকর্তাকে বদলি ও বরখাস্ত করা হতে পারে এমন গুঞ্জন ছিলো বেশ কিছুদিন ধরে। এর মধ্যে পদত্যাগ করেছেন স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ডা. আবুল কালাম আজাদ।

গত মার্চ মাসে করোনার প্রাদুর্ভাব শুরুর পর মাস্ক কেলেঙ্কারি নিয়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের পরিচালকসহ নানা কর্তাব্যক্তিকে নিয়ে সমালোচনা শুরু হয়। এরপর অনুমোদনহীন রিজেন্ট হাসপাতালের সঙ্গে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের চুক্তি, জেকেজির মতো প্রতিষ্ঠানের ভুয়া নমুনা পরীক্ষার পর প্রতিষ্ঠানটি তীব্র সমালোচনার সম্মুখীন হয়।

অন্যদিকে করোনা নিয়ে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় ও অধিদপ্তরের কাজে সমন্বয়হীনতা শুরু থেকেই ছিল। সেটা প্রকাশ্যে আসে রিজেন্ট হাসপাতাল এবং নমুনা সংগ্রহকারী প্রতিষ্ঠান জেকেজির নজিরবিহীন দুর্নীতি, অনিয়ম ও প্রতারণার পর। সবশেষ রিজেন্টের সঙ্গে চুক্তি করা নিয়ে পরস্পর পরস্পরকে দায়ী করে বক্তব্য দেয়ার মধ্যেই এমন পরিবর্তন স্বাস্থ্য অধিদপ্তরে।

You Might Also Like