সোমালিয়ায় আত্মঘাতী হামলায় ৩ সেনা নিহত

সোমবার (৭ সেপ্টেম্বর) সোমালিয়ার দক্ষিণে একটি সামরিক ঘাঁটির বাইরে গাড়ি বোমা ও মর্টার হামলায় সোমালি বিশেষ বাহিনীর অন্তত তিন সেনা নিহত হয়েছেন এবং গুরুতর আহত হয়েছেন এক আমেরিকান কর্মকর্তা। এ খবর দিয়েছে আল জাজিরা।

আল কায়েদা সংশ্লিষ্ট সশস্ত্র গোষ্ঠী আল শাবাব এই হামলার দায় স্বীকার করেছে এবং নিহতের সংখ্যা ২০ জন বলে দাবি করেছে।

জুবাল্যান্ড প্রদেশের প্রশাসনিক রাজধানী কিসমায়ুর বন্দর শহর থেকে ৬০ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত জানে আব্দাল্লা গ্রামের ওই হামলায় আহত হয়েছেন আরও এক সোমালি সেনা।

জুবাল্যান্ডের ডিরেক্টর অব কমিউনিকেশন্স মোহাম্মদ আহমেদ সাবরিয়ে বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে বলেন, ‘দানাব (বিশেষ) বাহিনীর দুই সেনা নিহত ও আরও দুজন আহত হয়েছেন। একজন মার্কিন কর্মকর্তা গুরুতর আহত।’ পরে আহত সোমালি সেনাদের একজনের মৃত্যুর খবর জানান তিনি।

সামরিক ঘাঁটির বাইরে আত্মঘাতী গাড়ি বোমা হামলা চালানোর কথা বার্তা সংস্থা আনাদোলুকে নিশ্চিত করেছেন সোমালি সরকারের মুখপাত্র ইসমাইল মুখতার ওরোনজো। স্থানীয় নিরাপত্তা কর্মকর্তা মোহাম্মদ আবদুল্লে বার্তা সংস্থা এএফপিকে জানান, বোমা বিস্ফোরণ করেও গাড়িটি জ্বলন্ত অবস্থায় চলছিল।

গত কয়েক ববছর হর্ন অব আফ্রিকা হিসেবে পরিচিত এই অঞ্চলের নিয়ন্ত্রণ নিতে সশস্ত্র লড়াই করছে আল শাবাব। তাদের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে সোমালিয়া সরকারকে সহায়তা করছে মার্কিন সামরিক বাহিনী। তারা প্রায় সময় জঙ্গি গোষ্ঠীটির বিরুদ্ধে বিমান অভিযান চালায়।

মার্কিন আফ্রিকা কমান্ডের এক মুখপাত্র তাদের এক কর্মকর্তা আহতের খবর নিশ্চিত করেছেন, ‘মার্কিন বাহিনীর এক সদস্য আজ সকালে আল শাবাবের হামলায় আহত হয়েছেন।’ তার অবস্থা স্থিতিশীল বলে জানান তিনি।

তবে আল শাবাবের দাবি, তারা একাধিক মার্কিনিকে হত্যা করেছে। গোষ্ঠীটির সামরিক পরিচালন বিভাগের মুখপাত্র আব্দিআসিস আবু মুসাব বলেছেন, ‘আত্মঘাতী গাড়ি বোমা দিয়ে আমরা জানে আব্দাল্লা গ্রামে দানাব নামে পরিচিত মার্কিন ও সোমালি বাহিনীর ওপর হামলা চালিয়েছি। আমরা চার মার্কিন কর্মকর্তা ও প্রশিক্ষিত ১৬ সোমালি সেনাকে হত্যা করেছি।’ এছাড়া আরও ১২ জন সোমালি সেনা আহত ও তিনটি মার্কিন সাঁজোয়া যান ধ্বংসের দাবি করেছে তারা।

You Might Also Like