সরকার ক্যাসিনোর মাধ্যমে শত শত কোটি টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে : রিটা রহমানের নির্বাচনী সভায় মির্জা ফখরুল

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ সরকার ক্যাসিনোর আড়ালে দেশ বিক্রি করার ষড়যন্ত্র করছে। ক্যাসিনোর মাধ্যমে তাদের নেতারা শত শত কোটি টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে। এই ক্যাসিনো কি? আমরা আগেতো এ নাম শুনিনি। আওয়ামী লীগ জনগণকে ক্যাসিনো দেখালো, খেলা শেখালো। তাদের নেতারা ক্যাসিনোয় কোটি কোটি টাকার অবৈধ সম্পদ গড়েছে। বিদেশে টাকা পাচার করেছে। সরকার ক্যাসিনো খেলার আড়ালে দেশকে জুয়ার দেশে পরিণত করেছে। এখন দেশ বিক্রির ষড়যন্ত্র চলছে। এ ষড়যন্ত্রের বিরুদ্ধে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে।

তিনি গত রোববার বৃষ্টি মুখর বিকেলে রংপুর মহানগরীর পায়রা চত্তরে রংপুর-৩ আসনের উপ নির্বাচনে ধানের শীষের প্রার্থী রিটা রহমানের নির্বাচনী পথসভায় বক্তব্য প্রদানকালে এসব কথা বলেন।

৫ অক্টোবরের উপ-নির্বাচনে বিএনপি প্রার্থী রিটা রহমানকে ভোট দেয়ার আহ্বান জানিয়ে মির্জা ফখরুল বলেন, এরশাদের লাঙ্গলে রংপুর পিছিয়েছে। আপনারা ভোট দিয়েছেন লাঙ্গলে, ভোট গিয়েছে নৌকায়। প্রেসিডেন্ট হিসেবে এরশাদ সাহেব ভালো মানুষ ছিলেন। ক্ষমতা ছাড়ার পর মানুষ তাকে ভালোবেসে লাঙ্গলে ভোট দিয়েছে। আর তিনি (এরশাদ) তা নৌকার কাছে বিক্রি করেছেন।

সারা দেশের উন্নয়নের তুলনায় রংপুর পিছিয়ে আছে উল্লেখ করে বিএনপি মহাসচিব বলেন, আপনাদের এলাকার মানুষ, ভারতীয় উপ মহাদেশের প্রখ্যাত রাজনীতিক মশিউর রহমান যাদু মিয়ার যোগ্য সন্তান রিটা রহমানকে বিএনপি মনোনয়ন দিয়েছে। আমরা বিশ্বাস করি, ধানের শীষের বিজয় মানে রংপুরের মানুষের বিজয়। কারন এই রংপুরবাসি অতীতেও ধানের শীষের সাথে ছিলেন।

এ সময় রংপুরবাসিকে জনগণ, গণতন্ত্র, স্বাধীনতা, ভোটাধিকারে বিশ্বাসী বিএনপি জোটের পক্ষে থেকে রিটা রহমানকে ধানের শীষে ভোট দিয়ে সরকারের ক্যাসিনোর বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানানোর আহ্বান জানান।

পথসভায় রংপুর মহানগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক শহিদুল ইসলাম মিজুর সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন, দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য ইকবাল মাহমুদ টুকু, কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির যুগ্ম-মহাসচিব ও ঢাকা মহানগর (দক্ষিণ) বিএনপি সভাপতি হাবিব-উন-নবী খান সোহেল, কেন্দ্রীয় কমিটির রংপুর বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক আসাদুল হাবীব দুলু, ঢাকা বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক শ্যামা ওবায়েদ, যুবদলের সাবেক ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আব্দুল খালেক, ঢাকা সিটির সাবেক মেয়র সাদেক হোসেন খোকার ছেলে ইসরাক হোসেন প্রমুখ।

এদিকে, বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতাদের নির্বাচনী প্রচারে অংশ নেয়ায় উজ্জ¦ীবিত হয়ে উঠেছে স্থানীয় বিএনপি ও অঙ্গ সংগঠনের নেতা-কর্মিরা। বৃষ্টিতে ভিজে নগরীর চারটি পয়েন্টে পথসভায় অংশ নেয়াসহ বিভিন্ন এলাকায় তারা গণসংযোগও করেন।

প্রচারে গিয়ে সড়ক দুর্ঘটনায় আহত মির্জা ফখরুল

রংপুরে উপ-নির্বাচনের প্রচারে অংশ নিয়ে অসুস্থ হয়ে পড়েছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তাকে রংপুর প্রাইম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

গতকাল সোমবার বিকেলে রংপুর মহানগরীর পায়রা চত্বর থেকে বিএনপি প্রার্থী রিটা রহমানের পথসভাশেষে পিকআপ ভ্যানে করে শাপলা চত্বর যাওয়ার সময় গাড়ি থেকে পড়ে গিয়ে তিনি হাতে আঘাত পান।

প্রাথমিক চিকিৎসার জন্য মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরকে রংপুর প্রাইম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়। বাঁ হাতের তালুতে আঘাতপ্রাপ্ত হন বলে জানিয়েছেন রংপুর মহানগর ছাত্রদলের সভাপতি নুর হাসান সুমন।

তিনি জানান, পায়রা চত্বর থেকে পথসভাশেষে মহাসচিবের নেতৃত্বে একটি বিশাল মিছিল শাপলা চত্বরের দিকে যাচ্ছিল। এ সময় দলীয় নেতাদের সাথে পিকআপ ভ্যানে তিনি ছিলেন। তার স্লোগানে উজ্জ্বীবিত সবাই নগরীর শাপলা চত্বরের কাছাকাছি পৌঁছলে চালক পিকআপটি হার্ড ব্রেক করে। এতে তিনি পিকআপ থেকে পড়ে গিয়ে ডান হাতে আঘাত পান। সঙ্গে সঙ্গে তাকে প্রাইম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানে তাকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়।

এদিকে, দলের কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির যুগ্ম মহাসচিব হাবিব উন নবী খান সোহেল জানান, বর্তমানে মহাসচিবের অবস্থা ভালো। তার হাতে ব্যান্ডেজ দেয়া হয়েছে। তিনি সুস্থ রয়েছেন। সন্ধ্যায় ঢাকার উদ্দেশ্যে রওয়ানা হয়েছেন।

উল্লেখ্য, রংপুর-৩ আসনের উপ-নির্বাচনে বিএনপি প্রার্থী রিটা রহমানের পক্ষে পথসভা ও গণসংযোগে অংশ নিতে রংপুর এসেছিলেন দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ দলের কেন্দ্রীয় নেতারা। আগামী ৫ অক্টোবর এ আসনে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।

You Might Also Like