সংসদ সদস্যদের ‘বিশেষ সুবিধায়’ প্লট-ফ্ল্যাট দেয়া হবে না: মন্ত্রী

সংসদ সদস্যদের ‘বিশেষ সুবিধায়’ প্লট ও ফ্ল্যাট দেয়া হবে না বলে জানিয়েছে গৃহায়ণ ও গণপূর্ত মন্ত্রণালয়। জাতীয় সংসদে গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রী মোশাররফ হোসেনের বক্তৃতার উদ্ধৃতি দিয়ে গণমাধ্যমে প্রকাশিত সংসদ সদস্যদের ফ্ল্যাট ও প্লট দেয়ার খবরের ব্যাখ্যায় বুধবার মন্ত্রণালয় এ কথা জানিয়েছে।

গত সোমবার জাতীয় সংসদে মোশাররফ হোসেন অ্যাপার্টমেন্ট নেয়ার আহ্বান জানালে এমপিরা শোরগোল শুরু করেন। এ অবস্থায় নতুন প্রকল্পের কথা জানিয়ে তাদের শান্ত করতে হয় তাকে।

এমপিদের শান্ত করতে মোশাররফ হোসেন বলেছিলেন, প্রায় দুই হাজার ২০০ একর জমির উপর নতুন প্রকল্প গ্রহণ করা হবে। অ্যাপার্টমেন্ট নেয়ার পর এমপিদের সেখানে প্লট দেয়া হবে।

ওই বক্তব্যের ব্যাখ্যায় বলা হয়েছে, “রাজউকের চলমান পরিকল্পিত আবাসিক প্রকল্পে বর্তমানে কোনো অবিক্রিত আবাসিক প্লট নেই। ফলে সংসদ সদস্যরা প্লট কেনার আগ্রহী হলেও তাদের জন্য কোনও প্লট বরাদ্দ দেয়ার সুযোগ নেই। ভবিষ্যতে রাজউক কোনও আবাসিক এলাকার প্রকল্প নিলে সেখানে সাধারণ জনগণের মত সংসদ সদস্যরাও আবেদন করতে পারবেন। শর্তা পূরণ করে তারা প্লট গ্রহণের সুযোগ পাবেন। সেক্ষেত্রে সংসদ সদস্যদের জন্য বিশেষ কোনো সুবিধা রাখা হয় না।”

মন্ত্রণালয় বলছে, “উত্তরা তৃতীয় পর্বের ১৮ নম্বর সেক্টর, পূর্বাচল ও ঝিলমিল আবাসিক এলাকায় প্রায় এক লাখ ফ্ল্যাট নির্মাণ করা হচ্ছে। এসব ফ্ল্যাট সর্বসাধারণের মধ্যে সহনীয় মূল্যে বিক্রি করা হবে। ফ্ল্যাট বিক্রির ক্ষেত্রে সংসদ সদস্যদের জন্য বিশেষ কোনো সুবিধা বা কোটা রাখা হয়নি। সকল শর্ত পূরণ করে যে কোনো সংসদ সদস্য সাধারণ জনগণের মতই এসব ফ্ল্যাট কিনতে পারবেন। যেহেতু এসব ফ্ল্যাট জনগণের মধ্যে বিক্রি করা হচ্ছে, সে হিসেবেই গণপূর্তমন্ত্রী সংসদ সদস্যদের ফ্ল্যাট কেনার জন্য বলেছেন। বিশেষ কোনও সুবিধা বা কোটার আওতায় তারা ফ্ল্যাট পাবেন না।”

ব্যাখ্যায় জানানো হয়, পূর্বাচল প্রকল্পের শর্তে ঢাকা শহরের আবাসিক ফ্ল্যাটের মালিকরা প্লটের জন্য আবেদন করার সুযোগ পেয়েছিলেন। ফলে ভবিষ্যতে আবাসিক প্লট প্রকল্পে অনুরূপ সুযোগ রাখা হলে তা শুধু সংসদ সদস্যদের জন্য নয়, সাধারণ জনগণও সেই সুযোগ পাবেন।

You Might Also Like