শ্রীলঙ্কার লীগেও ম্যাচ পাতানোর দায় স্বীকার

বিপিএলের পর এবার শ্রীলঙ্কা প্রিমিয়ার লিগে (এসএলপিএল) ম্যাচ ফিক্সিংয়ের অভিযোগ উঠেছে বাংলাদেশের সাবেক অধিনায়ক ও টেস্ট ক্রিকেটের সর্বকনিষ্ঠ সেঞ্চুরিয়ান মোহাম্মদ আশরাফুলের বিরুদ্ধে।

আশরাফুল নাকি এসএলপিএলে ম্যাচ ফিক্সিং করেছেন বলে আইসিসির কাছে স্বীকারোক্তি দিয়েছেন।

শ্রীলঙ্কান ক্রিকেট বোর্ডের বরাত দিয়ে বৃহস্পতিবার এই সংবাদ দিয়েছে শ্রীলঙ্কান দৈনিক ডেইলি মিরর।

পত্রিকাটির সংবাদে বলা হয়েছে, ২০১৩ সালের ২৩ মে আইসিসির এন্টি করাপশন ও সিকিউরিটি ইউনিটির (আকসু) কাছে আশরাফুল এসএলপিএলে ম্যাচ ফিক্সিং করেছেন বলে স্বীকারোক্তিমুলক বিবৃতি দিয়েছেন। সেখানে তিনি ২০১২ সালের ২৬ আগস্ট অনুষ্ঠিত রুহুনু রয়্যালস ও ওয়েমবা ইউনাইটেডের মধ্যকার ম্যাচে ফিক্সিং করার কথা স্বীকার করেছেন।

ডেইলি মিরর জানায়, দীর্ঘ দিন ধরেই এসএলপিএলে ম্যাচ ফিক্সিংয়ের বিষয়টি নিয়ে গুঞ্জন চললেও এতোদিন এই বিষয়ে সঠিক কোনো প্রমাণ ছিল না লঙ্কান বোর্ডের কাছে।

তবে গত মাসে এই বিষয়ে আইসিসির কাছ থেকে যথেষ্ট প্রমাণ পেয়েছে শ্রীলঙ্কান ক্রিকেট বোর্ড। যেখানে আশরাফুলের ম্যাচ ফিক্সিং করার স্বীকারোক্তিমূলক বিষয়টিও রয়েছে।

প্রায় ১১শ শব্দের সেই প্রতিবেদনের পরতে পরতে আছে, কীভাবে আইপিএলের আদলে গড়া শ্রীলঙ্কার ক্ষণস্থায়ী টিটোয়েন্টি লিগ এসএলপিএলে (শ্রীলঙ্কা প্রিমিয়ার লিগ) ম্যাচ পাতানো হয়েছিল।

উল্লেখ্য, বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) দ্বিতীয় আসরে ম্যাচ ফিক্সিংয়ের দায়ে ২০১৪ সালের ৮ আগস্ট আশরাফুলকে সব ধরনের ক্রিকেট থেকে ৮ বছরের জন্য নিষিদ্ধ করেছিল বিসিবির দুর্নীতিবিরোধী ট্রাইব্যুনাল। একইসঙ্গে তাকে ১০ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়।

পরে আশরাফুলের করা আবেদনের প্রেক্ষিতে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) ডিসপ্লিনারি প্যানেল তার শাস্তি ৩ বছর কমান। সাজা কমানো হলেও আপিলে আশরাফুলের ১০ লাখ টাকা জরিমানা বহাল রয়েছে।

You Might Also Like