‘রোহিঙ্গাদের নাগরিকত্ব দেবে না মিয়ানমার সরকার’

মিয়ানমারের সামরিক মদদপুষ্ট সরকার দেশটির সবচেয়ে নির্যাতিত রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীকে নাগরিকত্ব দেয়ার আহ্বান প্রত্যাখ্যান করেছে।

 

মিয়ানমারের প্রেসিডেন্টের মুখপাত্র এবং তথ্যমন্ত্রী ই হিটুট বলেছেন, দেশটির সরকার রোহিঙ্গা মুসলমান সম্প্রদায়কে নাগরিকত্বের অধিকার দেবে না। নিজ ফেসবুক পাতায় দেয়া বিবৃতিতে এ কথা জানান তিনি। রোহিঙ্গা শব্দটিই সামগ্রিক ভাবে মিয়ানমার সরকার প্রত্যাখ্যান করে বলেও এতে উল্লেখ করেন তিনি।

 

জাতিসংঘের সদস্য দেশগুলোর মানবাধিকার পরিস্থিতি খতিয়ে দেখার কাজে নিয়োজিত ইউনিভার্সাল পিরিওডিক রিভিউ’র আহ্বানের পরিপ্রেক্ষিতে এ মন্তব্য করেন তিনি।

 

মিয়ানমারের প্রায় ১৩ লাখ রোহিঙ্গা মুসলমানকে দেশটির সরকার সে দেশের নাগরিক বলে স্বীকার করে না। গত কয়েক বছর ধরে উগ্রবাদী বৌদ্ধরা রোহিঙ্গা মুসলমানদের ওপর চরম হত্যা ও নির্যাতন চালাচ্ছে। এ কাজে মিয়ানমার সরকারের প্রকাশ্য মদদ রয়েছে।

 

মিয়ানমারের সংখ্যালঘু রোহিঙ্গাদের বিশ্বের অন্যতম নির্যাতিত জাতি বলেছে জাতিসংঘ। ১৯৪৮ সালে দেশটি স্বাধীন হওয়ার পর থেকেই উগ্র বৌদ্ধদের হামলার শিকার হচ্ছে তারা।

 

অবশ্য ২০১২ সাল থেকে রোহিঙ্গা মুসলমানদের অবস্থার নাটকীয় অবনতি হতে শুরু করে। উগ্র বৌদ্ধদের হামলার কারণে এ পর্যন্ত লাখ লাখ রোহিঙ্গা মুসলমান দেশ ছাড়তে বাধ্য হয়েছে। এ ছাড়া, অনেকেই শরণার্থী শিবিরে মানবেতর জীবনযাপন করছেন।

You Might Also Like