‘রাশিয়া ভাঙার তৎপরতা থেকে আমেরিকার বিরত থাকা উচিত’

সাবেক মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী হেনরি কিসিঞ্জার বলেছেন, রাশিয়াকে বৃহৎ শক্তি হিসেবে বিবেচনা করা উচিত। একইসঙ্গে দেশটি ভাঙার প্রচেষ্টা থেকে আমেরিকার বিরত থাকাও উচিত বলে মন্তব্য করেন তিনি। মার্কিন সাময়িকী দ্য ন্যাশনাল ইন্টারেস্টকে দেয়া সাক্ষাৎকারে এসব কথা বলেন ৯২ বছর বয়সী এ সাবেক কূটনীতিবিদ।

তিনি বলেন, রাশিয়াকে ভাঙার বিষয়টি মার্কিন কর্মকর্তাদের লক্ষ্য হয়ে দাঁড়িয়েছে এবং দীর্ঘমেয়াদি লক্ষ্যমাত্রাকে এর সঙ্গে ওতপ্রোতভাবে জড়িয়ে ফেলতে হবে বলে মনে করছেন তারা। কিসিঞ্জার বলেন, রাশিয়াকে যদি সত্যিই বৃহৎ শক্তি হিসেবে মেনে নেয়া হয় তা হলে প্রথমেই দেখতে হবে মস্কোর উদ্বেগকে মার্কিন প্রয়োজনের সঙ্গে খাপ খাওয়ানো যায় কিনা।

রাশিয়া এবং ইউরোপের মধ্যের সংঘাত শুরুর ঐতিহাসিক প্রেক্ষাপট মার্কিন এবং ই্‌উরোপের সরকারগুলো বুঝতে ব্যর্থ হয়েছে বলে এ সাক্ষাৎকারে অভিযোগ করেন তিনি। তিনি বলেন, মস্কো-কিয়েভ সম্পর্ককে সব সময়ই বিশেষভাবেই দেখেছে রাশিয়া। এ সম্পর্ক কখনোই ঐতিহ্যগত দুই সার্বভৌম রাষ্ট্রের মধ্যে সীমাবদ্ধ ছিল না- উল্লেখ করে তিনি বলেন, রাশিয়ার দৃষ্টিভঙ্গি কখনোই এমন ছিল না এমনকি ইউক্রেনও এভাবে হয়ত চিন্তা করে না। পশ্চিম ইউরোপের জন্য কার্যকর সূত্রের মধ্যে ইউক্রেনের ঘটনাবলীকে ফেলা যায় না বলেও জানান তিনি।

কিয়েভের শাসকগোষ্ঠীর প্রতি সমর্থন যেকোনো মূল্যে বন্ধের আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, পাশ্চাত্য ও রাশিয়ার মধ্যে যে কোনো ধরণের সহায়তার বিষয়টি পরীক্ষা করে দেখা উচিত।

You Might Also Like