যৌন উত্তেজনা বৃদ্ধিকারী আইসক্রিম!

ভায়াগ্রা ট্যাবলেটের কথা এবার আপনি ভুলে গেলেও পারেন। কেননা বাজারে পাওয়া যাচ্ছে এখন ভায়াগ্রা আইসক্রিম। দ্রুত ফলাফল পেতে এই আইসক্রিমের জুড়ি নেই। খাওয়ার পর পরই তাৎক্ষণিক ফল পাওয়া যাচ্ছে। তবে বেডরুমের বাইরে এই আইসক্রিম খাবেন না যেন!

প্রতিটি আইসক্রিমে রয়েছে ২৫ মিলিগ্রাম ভায়াগ্রা। লিক মি আই এম ডিলিশাস নামের একটি ওয়েবসাইটে এই আইসক্রিমের প্রমোশনাল বিজ্ঞাপন চলছে।

নতুন নতুন খাদ্য উদ্ভাবক চার্লি হ্যারি ফ্রাঙ্কিস এই ভায়াগ্রা আইসক্রিমের উদ্ভাবক। লিক মি আই এম ডিলিশাস নামের ওই ওয়েবসাইটে বলা হয়, ‘সেলিব্রিটি খদ্দেররা এই ভায়াগ্রা আইসক্রিম খাওয়ার পর এর ফলাফল নিয়ে ব্যাপক সন্তুষ্টি প্রকাশ করেছেন।’

তবে খুব শিগগিরই এই পণ্যটি সাধারণ দোকানে পাওয়া যাওয়ার সম্ভাবনা নেই বললেই চলে। অন্তত গণমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদনগুলোতে তাই বলা হচ্ছে।

সম্প্রতি এক গবেষণায় দেখা গেছে যেসব পুরুষ নিয়মিত ভায়াগ্রা সেবন করেন তাদের মেলানোনা নামের মারাত্মক স্কিন ক্যান্সার রোগে আক্রান্ত হওয়ার বেশি ঝুঁকিতে থাকেন। যারা ভায়াগ্রা সেবন করেননা তাদের চেয়ে ৮৪ শতাংশ বেশি ঝুঁকিতে থাকেন ভায়াগ্রা সেবনকারীরা।

ওই গবেষণার পর ভায়াগ্রার মতো জনপ্রিয় যৌন উত্তেজনা বৃদ্ধিকারী কৃত্রিম ওষুধটি নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা দুঃশ্চিন্তাগ্রস্ত হয়ে পড়েছেন।

ফলে ১৯৯৮ সালে বাজারে আসা এই ওষুধটি নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞ ও ফুড এন্ড ড্রাগ এডমিনিস্ট্রেশনের কর্মকর্তারা চুলচেরা গবেষণায় নেমেছেন।

You Might Also Like