যৌনকর্মীকে নিয়ে বাকবিতণ্ডা, বন্ধু খুন

পাবনার ঈশ্বরদীতে যৌনকর্মীকে নিয়ে বাকবিতণ্ডার জেরে বন্ধুর ছুরিকাঘাতে বন্ধু খুন হয়েছেন। এ ঘটনায় যৌনকর্মীকে আটক করেছে পুলিশ।

শনিবার গভীররাতে উপজেলার আলহাজ মোড় এলাকার চরগড়গড়ি নামক গ্রামে এ ঘটনা ঘটেছে। নিহত সৌদি প্রবাসী আলহাজ আবু সাঈদ (৩৮) ওই এলাকার নাজিম উদ্দিনের ছেলে।

ঈশ্বরদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বিমান কুমার দাস আটক যৌনকর্মী লাবনীর স্বীকারোক্তিনুযায়ী জানান, আলহাজ আবু সাঈদ দীর্ঘদিন সৌদিতে ছিলেন। কয়েকদিন আগে তিনি দেশে ফিরেছেন।

শনিবার আবু সাঈদ ও তার অন্য বন্ধুরা ঢাকা থেকে যৌনকর্মী লাবনীকে উপজেলার চরগড়গড়ি গ্রামের বাড়িতে নিয়ে আসেন। গভীররাতে যৌনকর্মী লাবনীকে নিয়ে আলহাজ আবু সাঈদের সঙ্গে বন্ধু আবু সাঈদের বাকবিতণ্ডা হয়। এর একপর্যায়ে ধারালো অস্ত্র দিয়ে আবু সাঈদ প্রবাসী বন্ধুকে উপর্যুপরি ছুরিকাঘাত করলে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়। এ সময় অবস্থা বেগতিক দেখে ঘটনাস্থল থেকে অন্য বন্ধুরা পালিয়ে যান।

ওসি জানান, রোববার ভোরে থেকে কোনো সাড়া না পেয়ে বাড়ির লোকজন সন্দেহবসত ঘরের কড়া নাড়লে লাবনী ঘরের দরজা খুলে দেন। এ সময়  আলহাজ আবু সাঈদের রক্তাক্ত দেহটি পড়ে থাকতে দেখে লাবনীকে আটক করে পুলিশের খবর দেয়া হয়।

ওসি বিমান কুমার দাস জানান, খবর পেয়ে বেলা ১০টার দিকে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে যৌনকর্মী লাবনীকে আটক ও প্রবাসীর মৃতদেহ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। এ ঘটনায় থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

মৃতদেহ ময়নাতদন্তের জন্য পাবনা জেনারেল হাসপাতাল মগে পাঠানোর প্রক্রিয়াও চলছে বলে জানান ওসি বিমান।

You Might Also Like