যৌতুকের দাবিতে গৃহবধূকে পুড়িয়ে হত্যা

বরিশালের গৌরনদী উপজেলার নলচিড়া ইউনিয়নের বদরপুর গ্রামে যৌতুকের দাবিতে দু’সন্তানের জননী গৃহবধূ পারভীন আক্তারকে (২৫) গায়ে কেরোসিন ঢেলে পুড়িয়ে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

নিহতের লাশ ময়নাতদন্ত শেষে সোমবার দিবাগত রাত সাড়ে এগারোটায় বাবার বাড়ির পারিবারিক গোরস্থানে দাফন করা হয়। এ ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।

জানা যায় ৭ বছর পূর্বে গৌরনদী উপজেলার দক্ষিণ মাহিলাড়া গ্রামের পারভীন আক্তারকে পাশ্ববর্তী নলচিড়া ইউনিয়নের বদরপুর গ্রামের মৃত নায়েব আলী খানের পুত্র নজরুল খানের সাথে সামাজিক রিতি-নীতি অনুযায়ী বিয়ে দেয়া হয়।তাদের সংসারে দুটি পুত্র সন্তান রয়েছে।

নিহতের ভাই দিনমজুর শাহজাহান সরদার জানান, বিয়ের পর থেকেই বিভিন্ন সময় স্বামী নজরুল খান ও তার পরিবারের সদস্যরা যৌতুকের দাবিতে পারভীনকে শারিরিক নির্যাতন করতো। বোনের সুখের কথা চিন্তা করে দু’বারে তাদেরকে ৯০ হাজার টাকা যৌতুক দেয়া হয়।

গত ১৯ অক্টোবর আবারও এক লাখ টাকা এনে দিতে বললে পারভীন অমত করে। এসময় নজরুল ও তার পরিবারের সদস্যরা পারভীনকে অমানুষিক নির্যাতন করে। এতে পারভীন অজ্ঞান হয়ে পড়লে তার গায়ে কেরোসিন ঢেলে পুড়িয়ে হত্যার চেষ্টা করে। এসময় পারভীনের চিৎকারে প্রতিবেশীরা এগিয়ে এসে মুমুর্ষ অবস্থায় উদ্ধার করে প্রথমে গৌরনদী পরে বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে ভর্তি করেন। পরবর্তীতে উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রবিবার ২৫ অক্টোবর রাতে পারভীন মারা যায়।

এ বিষয়ে গৌরনদী থানার ওসি মো. আলাউদ্দিন মিলন জানান, সোমবার রাতে নিহতের ভাই মৃত কাদের সরদারের পুত্র শাহজাহান সরদার বাদি হয়ে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন। আসামিদের গ্রেফতারের জন্য পুলিশ অভিযান শুরু করেছে।

You Might Also Like