যুবতীকে ধর্ষণ করলো মহিলা

একজন মহিলাকে অপর মহিলাকে ধর্ষণ করতে পারে? উত্তরপ্রদেশের আলিগড়ের কস্বা খের এলাকার এক যুবতী এক মহিলার বিরুদ্ধেই ধর্ষণের অভিযোগ দায়ের করেছে৷ সকলেই জানত ওই যুবতী তার প্রেমিকের সঙ্গে পালিয়ে গিয়েছিল৷ কিন্তু ওই যুবতী ম্যাজিস্ট্রেটের সামনে নিজের বয়ানে বলেছে, সে প্রমিকের সঙ্গে পালায়নি, গ্রামেরই এক মহিলা তাকে নিয়ে গিয়েছিল৷ওই মহিলা যুবতীকে নিজের সঙ্গেই রেখেছিল এবং তাকে ধর্ষণ করেছিল৷

পুলিশ যখন জিজ্ঞেস করে যে একজন মহিলা কিভাবে ধর্ষণ করতে পারে? সে প্রশ্নের উত্তরে যুবতী যা জানায় তা সত্যিই আশ্চর্যজনক৷ যুবতী বলে ওই মহিলার দুই ধরনের যৌনাঙ্গই ছিল৷ খের থানার পুলিশ প্রধান রজনেশ তিওয়ারি জানিয়েছে, অভিযুক্ত মহিলাকে গ্রেফতার করে তার মেডিকেল পরীক্ষা করা হয়েছে৷ রিপোর্ট আসার পর নিয়ম অনুযায়ী তদন্ত করা হবে৷
গত ১৬ জুন বিশনপুরী গ্রাম থেকে এক যুবতী নিখোঁজ হয়ে যায়৷ সেসময় সকলে ভেবেছিলেন সে তার প্রেমিকার সঙ্গে পালিয়ে গিয়েছে৷ যুবতীর বাড়ির লোকেরা খের থানা এলাকার এক মহিলা ও তার দুই মেয়ের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করে বিয়ের উদ্দেশ্যে যুবতীকে লুকিয়ে নিয়ে যাওয়ার রিপোর্ট দায়ের করেছিল৷ এরপর পুলিশের চাপ সৃষ্টি হলে যুবতী বাড়িতে ফিরে আসে৷ এরপর পুলিশ যুবতীর মেডিকেল টেস্ট করিয়ে কোর্টে তার বয়ান দাখিল করে৷ যুবতী পুলিশ ও অন্যদের কাছে যে বয়ান দেয় তাতে সকলেই অবাক হয়ে যায়৷ যুবতী গ্রামের এক মহিলার বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ করে৷ কিন্তু অভিযুক্ত মহিলার মেডিকেল টেস্টের রিপোর্ট আসার পরই গোটা ঘটনার সত্যতা জানা যাবে৷

You Might Also Like