যুদ্ধের জন্য আঙ্কারাকে দায়ী করল আর্মেনিয়া; পাল্টা হুঁশিয়ারি তুরস্কের

আজারবাইজানের সঙ্গে সংঘাতের জন্য আবারও তুরস্ককে দায়ী করেছে আর্মেনিয়া। দেশটির প্রধানমন্ত্রী নিকোল পাশিনিয়ান বলেছেন, তার বিশ্বাস তুরস্ক অবস্থান বদলালেই আজারবাইজান কারাবাখে সামরিক পদক্ষেপ স্থগিত করবে।

বার্তাসংস্থা রয়টার্সকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি এ কথা বলেছেন। পাশিনিয়ান আরও দাবি করেন, যতক্ষণ পর্যন্ত তুরস্কের অবস্থান পরিবর্তন না হয়, ততক্ষণ পর্যন্ত আজারবাইজান থামবে না। তারা সংঘাত থামাবে না।

এর আগে সোমবার তুরস্কের প্রতিরক্ষামন্ত্রী হুলুসি আকার বলেছেন, আজারবাইজানের বিভিন্ন আবাসিক এলাকায় হামলা চালিয়েছে আর্মেনিয়া। এটি যুদ্ধবিরতি চুক্তির স্পষ্ট লঙ্ঘন। এসবের জন্য একদিন তাদের ইতিহাস ও আন্তর্জাতিক আইনের মুখোমুখি হতে হবে।

তুরস্ক হুঁশিয়ারি দিয়ে আরও বলেছে, প্রতিবেশী আজারবাইজানের বেসামরিক নাগরিকদের ওপর হামলার মূল্য দিতে হবে আর্মেনিয়াকে।

নাগরনো-কারাবাখ অঞ্চল নিয়ে আর্মেনিয়া ও আজারবাইজানের পুরনো সংঘাত গত ২৭ সেপ্টেম্বর থেকে নতুন করে আবার শুরু হয়।

আন্তর্জাতিকভাবে নাগরনো-কারাবাখ অঞ্চলটি আজারবাইজানের অবিচ্ছেদ্য ভূখণ্ড হিসেবে স্বীকৃত। কিন্তু আর্মেনিয়া নাগরনো-কারাবাখসহ এর আশেপাশের বিশাল এলাকা দখল করে রেখেছে।

নতুন করে সংঘর্ষ শুরু হওয়ার পর কয়েক দিনে ৩ শতাধিক মানুষের প্রাণহানি হয়েছে। রুশ প্রস্তাবে সাড়া দিয়ে দুই পক্ষ মস্কোতে যুদ্ধবিরতিতে সম্মত হয়েছে। তবে যুদ্ধবিরতি কার্যকরের পরপরই উভয় দেশ একে অপরের বিরুদ্ধে তা লঙ্ঘনের অভিযোগ তুলেছে।#

পার্সটুডে

You Might Also Like