মীর কাসেমের ফাঁসিতে পাকিস্তানের প্রতিক্রিয়া: কড়া প্রতিবাদ বাংলাদেশের

মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে মীর কাসেম আলীকে মৃত্যুদণ্ড দেয়া প্রসঙ্গে পাকিস্তান সরকারের প্রতিক্রিয়াকে আসঙ্গত বলে প্রতিবাদ জানিয়েছে বাংলাদেশ ।

আজ(রবিবার) বিকালে পাকিস্তানের ভারপ্রাপ্ত রাষ্ট্রদূত সামিনা মেহতাবকে তলবের পর পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে বাংলাদেশের আনুষ্ঠানিক প্রতিবাদপত্র তুলে দেয়া হয়।মীর কাসেমের মৃত্যুদণ্ডের প্রতিক্রিয়ায় রাষ্ট্রীয়ভাবে পাকিস্তানের সমবেদনা জানানোর প্রতিবাদে লিখিত এ প্রতিবাদপত্র তুলে দেন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব কামরুল হাসান। পাকিস্তানের ভারপ্রাপ্ত রাষ্ট্রদূতের সঙ্গে প্রায় বিশ মিনিটের এক বৈঠক করেন মন্ত্রণালয়ের এই অতিরিক্ত সচিব।

বৈঠক শেষে কামরুল হাসান সাংবাদিকদের বলেছেন ‘পাকিস্তান মীর কাসেমের মৃত্যুদণ্ডের বিষয়ে যে মত দিয়েছে তা আমাদের অভ্যন্তরীণ বিষয়ে হস্তক্ষেপের শামিল। আমরা তাদের জানিয়েছি, স্বচ্ছ প্রক্রিয়ার মাধ্যমে মীর কাসেমের বিচার সম্পন্ন হয়েছে। তার আপিল করার সুযোগ ছিল। সর্বোচ্চ আদালত মনে করেছেন মীর কাসেম আলীর এ শাস্তি প্রাপ্য। এ জন্যে এ শাস্তি তাকে দেয়া হয়েছে। এ বিষয়ে পাকিস্তান সরকারের মত ব্যক্ত করার কোনো সুযোগ নেই।’

শনিবার রাতে মানবতবিরোধী অপরাধের দায়ে অভিযুক্ত আসামী মীর কাসেম আলীর মৃত্যুদণ্ড কার্যকর হওয়ায় পাকিস্তানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় দুঃখ প্রকাশ করে এক বিবৃতি দেয়।

জামায়াতে ইসলামী’র আমির মতিউর রহমান নিজামী ও বিাএনপি নেতা সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর মৃত্যুদণ্ডের পরও পাকিস্তান অনুরূপ বিবৃতি দিয়েছিল।

You Might Also Like