মায়ের পাশে সমাহিত হবেন এন্ড্রু কিশোর

জনপ্রিয় কণ্ঠশিল্পী এন্ড্রু কিশোর না ফেরার দেশে চলে যাওয়ার খবরে রাজশাহীজুড়ে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। দেশের প্লে-ব্যাক সম্রাট এন্ড্রু কিশোর প্রায় ১০ মাস ক্যান্সারের সঙ্গে লড়াই করে সোমবার সন্ধ্যা ৬টা ৫৫ মিনিটে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। তিনি আটবার জাতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত শিল্পী।

সিঙ্গাপুরে চিকিৎসাধীন এন্ড্রু কিশোর ১১ জুন রাত আড়াইটায় একটি বিশেষ ফ্লাইটে দেশে ফিরেন। তারপর ঢাকায় কয়েকদিন অবস্থান করে কোলাহলমুক্ত থাকতে রাজশাহী চলে আসেন। রাজশাহী মহানগরীর মহিষবাথানে বোন ডা. শিখা বিশ্বাসের বাড়িতে ছিলেন তিনি। এই বাড়িতেই কাটলো তার জীবনের শেষ দিনগুলো।

এন্ড্রু কিশোরের বোনজামাই ক্যান্সার বিশেষজ্ঞ ডা. প্যাট্টিক বিপুল বিশ্বাস জানিয়েছেন, শিল্পীর মরদেহ রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালের হিমঘরে রাখা হয়েছে। তার ছেলে ও মেয়ে অস্ট্রেলিয়ায় রয়েছেন। তারা দেশে ফিরলে সব আনুষ্ঠানিকতা শেষে শিল্পীকে তার মায়ের পাশে সমাহিত করা হবে। মৃত্যুর আগে খ্রিস্টান ধর্মে বিশ্বাসী এন্ড্রু কিশোর নিজেই বলে গেছেন, তাকে যেন মায়ের পাশেই সমাহিত করা হয়। শিল্পীর এই ইচ্ছা পূরণ করা হবে।

You Might Also Like