মার্ভেলের ‘বাস্তব জীবনের সুপারহিরো’ নিহত

মার্ভেল কমিকস বইপ্রেমীদের কাছে ‘বাস্তব জীবনের সুপারহিরো’খ্যাত লেখক, প্রকাশক, প্রযোজক স্ট্যান লি মারা গেছেন। পশ্চিমা সংবাদমাধ্যমগুলো এ তথ্য জানিয়েছে।

জানা গেছে, অনেকদিন ধরেই বার্ধক্যজনিত নানা সমস্যায় ভুগছিলেন তিনি। পারিবারিক একটি সূত্রের বরাত দিয়ে হলিউড রিপোর্টাসের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, স্থানীয় সময় সোমবার সকালে লস অ্যাঞ্জেলেসের সিডার-সিনাই মেডিক্যাল সেন্টারে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন ৯৫ বছর বয়সি লি। তার মেয়ে জে.সি লির অ্যাটর্নি স্ট্যান লির মৃত্যুর খবরটি নিশ্চিত করেছেন।

১৯৩৯ সালে থেকে কমিকস নিয়ে কাজ শুরু করেন লি। কিংবদন্তি এই ব্যক্তিত্বের হাত ধরে পূর্ণতা পায় মার্ভেল কমিকস। স্পাইডার-ম্যান, দ্য এক্স-মেন, থর, আয়রন ম্যান, ব্ল্যাক প্যান্থার, ফ্যান্টাস্টিক ফোরের মতো সুপারহিরো চরিত্রের স্রষ্টা তিনি। জ্যাক কিরবি, স্টিভ ডিকোর সঙ্গে সুপারহিরো চরিত্রগুলোকে রূপ দেন লি। মার্ভেল কমিকসকে ছোট একটি প্রকাশনা প্রতিষ্ঠান থেকে বিশ্বের অন্যতম সেরার তালিকায় তুলে এনেছেন। শুধু কমিকসের পাতা নয়- আয়রন ম্যান, স্পাইডার-ম্যান, হাল্করা উঠে এসেছে সিনেমার পর্দাতেও।

পর্দার পেছনে কাজ করার পাশাপাশি মার্ভেলের সিনেমাতে ক্যামিও চরিত্রেও হাজির হয়েছেন লি। অ্যাভেঞ্জার্স : ইনফিনিটি ওয়ার সিনেমায় এক বাস ড্রাইভারের ভূমিকায় তাকে দেখা গেছে। অ্যাভেঞ্জার্স ফোর সিনেমায় শেষবারের মতো এ কিংবদন্তিকে পর্দায় দেখা যাবে বলে জানা গেছে।

স্ট্যান লির জন্ম ১৯২২ সালে, নিউ ইয়র্কের একটি নিম্নবিত্ত পরিবারে। তার বাবা জ্যাক লিয়েবার ছিলেন দর্জি। ২০০২ সালে স্ট্যান লি তার আত্মজীবনী ‘এক্সেলসিয়র! দ্য অ্যামেজিং লাইফ অব স্ট্যা লি’ প্রকাশ করেন।

You Might Also Like