মার্কিন কূটনীতিককে ঢুকতে দিলো না মিশর

মিশর সরকারের সমালোচনার জন্য আমেরিকার বিশিষ্ট বুদ্ধিজীবী ও সাবেক কূটনীতিক মিশেল ডুননেকে দেশটিতে প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। শনিবার কায়রো বিমানবন্দরে অবতরণ করার পর তাকে ফিরিয়ে দেয় মিশর সরকার।

বার্তা সংস্থা এএফপিকে ইমেইলে জানান, মিশর সরকার সমর্থিত ‘ইজিপশিয়ান কাউন্সিল ফর ফরিন অ্যাফেয়ার্সে’র এক সম্মেলনে আমাকে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছিল।

কায়রো বিমানবন্দর সূত্র জানায়, শনিবার রাতে কায়রো বিমান বন্দরে নামেন মিশেল। রাষ্ট্রীয় নিরাপত্তা বাহিনীর করা নিষিদ্ধ ব্যক্তিদের তালিকায় তার নাম ছিল। আর তাই ফিরতি ফ্লাইটে ফ্রাংকফুটে রওয়ানা দেন তিনি।

মিশেল বলেন, “কী কারণে আমাকে মিশরে প্রবেশ করতে দেয়া হবে না, সে বিষয়ে কিছুই বলেনি কর্তৃপক্ষ। আমি এক দশকেরও বেশি সময় ধরে দেশেটিতে ভ্রমণ করেছি।”

তিনি বলেন, “কিছু মিশরীয় জানিয়েছে, আমি সরকারের পক্ষের লোক নই। আমি যখন সরকার সমর্থিত লোকদের অনুষ্ঠানে গেলাম তখন আমাকে ঢোকার অনুমতি দেয়া হলো না।”

ডোননে আন্তর্জাতিক সম্পর্কের বিষয় নিয়ে গবেষণা করেন। তিনি মধ্যপ্রাচ্যে দূত হিসেবেও দায়িত্ব পালন করেছেন।

তিনি বলেন, “আয়োজকরা আমাকে জানিয়েছেন, আমি যেন আলোচনার মাধ্যমে সরকার সম্পর্কে আমার ভুল ধারণা দূর করি।”

এর আগে গত আগস্ট মাসেও নিরাপত্তার কারণ দেখিয়ে হিউম্যান রাইটস প্রধানকেও মিশর প্রবেশে বাধা দেয়া হয়।

You Might Also Like