বিয়ের জন্য বয়স বৃদ্ধি প্রেমিকের!

বলা হয়ে থাকে, প্রেম নাকি কোনো বাধা মানে না। ভারতের গুজরাটের আহমেদাবাদের এক প্রেমিকের ক্ষেত্রেও তেমনটি ঘটেছে। ওই প্রেমিকের বয়স ১৮। আর প্রেমিকার বয়স ১৯। ভারতীয় আইন অনুযায়ী মেয়েটির বিয়ের বয়স হলেও, ছেলেটির হয়নি। অর্থাৎ ছেলেদের বিয়ের বৈধ বয়স ২১। কোনো উপায় না পেয়ে শেষ পর্যন্ত বিয়ের জন্য নিজের বয়স বাড়িয়ে ২১ করেছেন ওই প্রেমিক!

বয়সে বড় প্রেমিকাকে বিয়ে করতে আহমেদাবাদের বাসিন্দা প্রবীণ ধাওয়াল হলফনামায় দাবি করেন, তার বয়স ২১ বছর। গত ২ সেপ্টেম্বর স্থানীয় একটি মন্দিরে ওই তরুণীকে বিয়ে করেন তিনি। এর পর চ্যারিটেবেল ট্রাস্টের কাছ থেকে বিয়ের সার্টিফিকেটও নিয়ে নেয় তারা। অবশ্য সেই সার্টিফিকেটের আইনি বৈধতা নেই।

প্রবীণের এই ‘কীর্তির’ কথা জানতে পেরে চটেন তার অভিভাবকরা। এমনকি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে ছেলেন জন্ম সনদ পেশ করে প্রমাণ করেন যে, প্রবীণের এখনো বিয়ের বয়স হয়নি। তার জন্ম ১৯৯৬ সালের ২৪ জুলাই। সে অনুযায়ী আদতে তার বয়স ১৮ বছর। সে নাবালক, তাই তার বিয়েও বৈধ নয়।

এদিকে, মেয়ের পরিবারের অভিযোগের পর ধর্ষণের দায়ে প্রবীণকে আজমীর থেকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। পরে অবশ্য জুভিনাইল জাস্টিস বোর্ড তার জামিন মঞ্জুর করে। অপরদিকে, প্রবীণের মা-বাবা এই বিয়ে বাতিলের জন্য মামলা দায়ের করেছেন।

জানা গেছে, প্রবীণ জুয়া খেলায় বেশ পারদর্শী। জুয়া খেলার জন্য তাকে ভাড়া করা হয়। তার বিরুদ্ধে বেশ কয়েকবার গ্যাম্বলিংয়ের অভিযোগও আনা হয়েছিল।

You Might Also Like