বনানীতে ধর্ষণের কথা স্বীকার ৪ আসামির

বনানীতে দুই তরুণীকে ধর্ষণের কথা স্বীকার করেছে গ্রেপ্তারকৃত চার আসামি।

সাফাত আহমেদসহ চারজনই আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দিয়েছে। সর্বশেষ নাঈম আশরাফ ওরফে হালিম এ স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেয়।

ডিএমপির অতিরিক্ত কমিশনার মনিরুল ইসলাম বলেন, ‘আসামিদের ধর্ষণের কথা স্বীকার করা মানে মামলার তদন্ত অনেকটা শেষ হয়ে যাওয়া। এ কারণে এটির দ্রুত তদন্ত শেষ হবে। তদন্ত কর্মকর্তাকে ইতোমধ্যে নির্দেশও দেওয়া হয়েছে। আবার এ মামলায় অন্য কোনো আসামিও নেই। একই সঙ্গে ঘটনার বিস্তারিতও বেরিয়ে এসেছে। তদন্ত প্রতিবেদনে এর বিস্তারিত থাকবে।’

গোয়েন্দারা বলছেন, সাফাত, হালিম, সাকিফ ও ড্রাইভার বিল্লাল স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে, যা তরুণীদের দেওয়া তথ্যের সঙ্গে মিল রয়েছে। অস্ত্রের যে অভিযোগ উঠেছে তাও আসামিদের দেওয়া তথ্যে মিল রয়েছে। মোবাইলে ধারণ করার দৃশ্যও মিলেছে। এ কারণে এ মামলা নিয়ে আর কালক্ষেপণ করতে চাচ্ছেন না তদন্ত সংশ্লিষ্টরা।

উল্লেখ্য, ২৮ মার্চ বনানীর দ্য রেইন ট্রি হোটেলে বিশ্ববিদ্যালয়ের দুই শিক্ষার্থী গণধর্ষণের শিকার হয়। ৬ মে বনানী থানায় আপন জুয়েলার্সের মালিক দিলদার আহমেদ সেলিমের ছেলে সাফাত আহমেদসহ পাঁচজনকে আসামি করে মামলা করেন এক ছাত্রী। পরে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী তাদের গ্রেপ্তার করে।

You Might Also Like