‘ফুটবলের দেশকে’ গোল্ড মেডেল এনে দিতে মরিয়া নেইমার

নেইমারের হাত ধরে অধরা অলিম্পিক শিরোপার স্বপ্ন দেখছে ‘ফুটবলের দেশ’ ব্রাজিল। গোল্ড মেডেল জিততে এক প্রকার মরিয়া বার্সেলোনা তারকা। ঘরের মাটিতে অলিম্পিক জেতার ভার যে তার কাঁধেই। গুরুদায়িত্ব নিয়ে দলকে সামনে থেকে নেতৃত্ব দিতে মোটেও ভীত নন ২৪ বছর বয়সী এ ফরোয়ার্ড।

আগামী ৪ আগস্ট রিও অলিম্পিকের পর্দা উঠবে। উদ্বোধনী ম্যাচে দক্ষিণ আফ্রিকার মুখোমুখি হবে ব্রাজিল। খেলা শুরু হবে বাংলাদেশ সময় দিবাগত রাত ১টায়। ১৬ দলের ফুটবল ইভেন্টে গ্রুপ ‘এ’ তে সেলেকাওদের অপর দুই প্রতিপক্ষ ইরাক ও ডেনমার্ক।

ব্রাজিলকে প্রথমবারের মতো অলিম্পিকের স্বর্ণ পদক এনে দিতে শতবর্ষী কোপা আমিরিকা টুর্নামেন্টে ছিলেন না নেইমার। দলের সেরা তারকার অনুপস্থিতিতে গ্রুপ পর্ব থেকেই বাদ পড়ার লজ্জায় ডোবে পাঁচবারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়নরা।

সে যাই হোক, নিজ দেশে ঐতিহাসিক অলিম্পিক জয়ের মধ্য দিয়ে সব দুঃখ ভুলতে চান নেইমার। ব্রাজিলিয়ান এক টিভি চ্যানেলকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, ‘এটা একটা অনন্য সুযোগ। শুধুমাত্র আমার জন্য নয়, টিমের প্রত্যেকের জন্যই। আমরা জানি, এই মেডেলটা কতটা গুরুত্বপূর্ণ।’

‘গোল মেডেলের জন্য ব্রাজিলের দীর্ঘ অপেক্ষার অবসান ঘটাতে চাই। এটি জেতার লক্ষ্যে আমরা নিজেদের উজাড় করে দেব। ব্রাজিলের মতো দেশের জন্য এটা বিরল, যাকে ফুটবলের দেশ হিসেবে বিবেচনা করা হয়। কিন্তু এখনো এই গোল্ড জেতা হয়নি।’-যোগ করেন নেইমার।

ব্রাজিলের হয়ে দ্বিতীয়বারের মতো অলিম্পিক মিশনে নামছেন নেইমার। এর আগে ২০১২ লন্ডন অলিম্পিকের ফাইনালে মেক্সিকোর কাছে (২-১) হেরে অঝোরে কেঁদেছিলেন সে সময়ের উদীয়মান তারকা। ১৯৮৪ ও ১৯৮৮ সালের ইভেন্টেও রানারআপ হয়ে মাঠ ছাড়ে সেলেকাওরা। ১৯৯৬ ও ২০০৮ আসরে জেতেছিল ব্রোঞ্জ পদক।

You Might Also Like