ফিলাডেলফিয়ায় কংগ্রেসওম্যান প্রার্থী ড. নীনার নির্বাচনি প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত

ফিলাডেলফিয়ার আপার ডারবি ৬৯ স্ট্রীট এর একটি ভেনুতে অনুষ্ঠিত হয়ে গেলো ফিলাডেলফিয়া (পিএ-০১) থেকে কংগ্রেস পদপ্রার্থী বাংলাদেশী বংশোদ্ভূত আমেরিকান নাগরিক ড. নীনা আহমেদের প্রথম নির্বাচনি প্রস্তুতি সভা। ড. নীনার নির্বাচন পরিচালনা সমন্বয়কারী বিশিষ্ট কমিউনিটি নেতা সংগঠক বাংলাদেশ এসোসিয়েশন অফ দেলোয়ার ভ্যালির সাবেক প্রেসিডেন্ট ডা: ইবরুল চৌধুরীর আহ্বানে স্থানীয় প্রবাসী বাংলাদেশী কমুনিটির সদস্য ও নেতৃবৃন্দ অংশগ্রহণ করেন। সভা পরিচালনা করেন মেলবোর্ন বরোর কাউন্সিলম্যান এবং সদ্য সিটি কাউন্সিলে নির্বাচিত ডেমোক্রেট কমিটির ভাইস প্রেসিডেন্ট নুরুল হাসান ।
সভা সঞ্চালনার দায়িত্বে ছিলেন আপারডারবির প্রথম বাংলাদেশি কাউন্সিম্যান শেখ সিদ্দীক। ডা: ইবরুলের ধন্যবাদ জ্ঞাপনের মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠানের শুরু হয়। এরপর অনুষ্ঠানে আগত কমিউনিটি নেতৃবৃন্দ একে একে তাদের অভিমত ব্যক্ত করেন। আপারডারবি কাউন্সিলম্যান শেখ সিদ্দীক বলেন, সবাইকে আমেরিকার মুল রাজনীতির সাথে যুক্ত হতে হবে এবং সবাই একত্রিত হয়ে ড. নীনাকে ফিলাডেলফিয়ার প্রথম বাংলাদেশী মহিলা কংগ্রেসওমেন হিসেবে নির্বাচিত করার জন্য কাজ করতে হবে। মেলবোর্ন বরোর কাউন্সিলম্যান মুনসুর আলী সবাইকে ড. নীনার পক্ষে এক হয়ে কাজ করার আহব্বান জানান। মেলবোর্ন বুরোর ট্যাক্স কালেক্টর মইন চৌধুরী, আসন্ন প্রাইমারীতে ড. নীনাকে নির্বাচিত করতে সবার প্রতি অনুরোধ জানান । এছাড়াও আরো অনুষ্ঠানে মতামত ব্যক্ত করেন বাংলাদেশ কমুনিটি অব পেনসালভেনিয়ার সভাপতি মোহাম্মেদ হারেস, বাংলাদেশ কমুনিটি অব পেনসালভেনিয়ার প্রতিনিধি আলতামাস বাবুল, নর্থইস্ট ফিলাডেলফিয়া বিয়ানি বাজার সমিতির প্রতিনিধি আলিম উদ্দীন, কমুনিটি নেতা সাখাওয়াত হোসেন, দেলাওয়ার হোসেন্, রফিকুল ভুঁইয়া, মতিউর রহমানসহ আরো অনেকে। জরুরি কাজে ব্যস্ত থাকায় অনুষ্ঠানে ড. নীনা উপস্থিত না থাকলেও ফোনে তিনি সবাইকে ধন্যবাদ জানান এবং অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করতে না পারায় দু:খ প্রকাশ করেন।
অনুষ্ঠানে সভাপতি ডা: ইবরুল বলেন, আমাদের সময় এবং সুযোগ এসেছে সব প্রবাসি বাংলাদেশীদের সকল দলমতের উর্ধ্বে উঠে ড. নীনাকে আসন্ন নির্বাচনে প্রথম বাংলাদেশী কংগ্রেস ওমেন হিসাবে নির্বাচিত করা এবং সেটা সম্ভব হবে যদি আমরা সবাই ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করি। ফিলাডেলফিয়ায় প্রথম মহিলা কংগ্রেসওম্যান প্রার্থী হিসাবে অন্যান্য ভিনদেশী প্রবাসীদের কাছেও ড. নীনার অনেক জনপ্রিয়তা রয়েছে। আমাদের বাংলাদেশীদের সমস্যা সমাধানে সংসদে কথা বলার জন্য একজন প্রতিনিধি থাকলে আমাদের সুযোগ বাড়বে। আমি মনে করি ড. নীনা একজন অভিজ্ঞ রাজনীতিক। অতীতেও তিনি তার নিজস্ব যোগ্যতায় ওবামা প্রশাসনে জায়গা করে নিয়েছিলেন। বাংলাদেশের গার্মেন্টস কোটা বাতিলের জন্য আমেরিকার সরকারের কাছে বলিষ্ঠ পদক্ষেপ রেখেছেন, ফিলাডেলফিয়ায় প্রধান সড়কে বাংলাদেশর পতাকা উত্তলনের জন্য সহযোগিতা করেছেন এবং প্রশাসনে বাংলাদেশীদের কাজের সুযোগ দানে তিনি অনেক সহায়তা করেছেন। স্থানীয় প্রবাসী আফ্রিকান, এশিয়ান, হিস্পেনিকদের কাছেও তার অনেক জনপ্রিয়তা রয়েছে। এ ছাড়া আমরা তাকে যখন যে কোন অনুষ্ঠানে ডেকেছি তখনি তার কাছ থেকে সাড়া পেয়েছি। তিনি একজন উচ্চ সুশিক্ষিত, সফল ব্যাবসায়ী এবং সুদক্ষ রাজনীতিক। সবচেয়ে বড় কথা তিনি একজন বাংলাদেশী। তাই সবার অংশগ্রহণে ড. নীনাকে নির্বাচিত করার লক্ষ্যে কাজ করে যাবো।
অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন মুরাদ হোসেন, হেলাল উদ্দীন, এনামুল হক, জামাল উদ্দীন, নুরুদ্দীন নাহিদ, ইউনুস মিয়া, আবুল কাশেম, ইকবাল বাহার, আব্দুল্লাহ আল আমিন, সহিদুল ইসলাম, হেলাল উদ্দীন ভূঁইয়া, মফিজুল ইসলাম, মোহাম্মেদ হক প্রমুখ।
সভায় বিভিন্ন সিটি ও বরোতে কমুনিটি নেতাদের সমন্বয়ে বিভিন্ন সাব কমিটি গঠন করে খুব শীঘ্রই আরেকটি সভা আহব্বানের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়। ড. নীনা নির্বাচন সংক্রান্ত বিস্তারিত তথ্যের জন্য ডা: ইবরুল চৌধুরী ২৬৭-২৫৫-৫৬০৫, শেখ সিদ্দীক ২১৫-৬৫১-১৯২৩, মফিজুল ইসলাম ২১৫-৬৯২-২২৮৫ এর সাথে যোগযোগ করার জন্য বিনীত অনুরোধ জানানো হয়েছে।

You Might Also Like