প্রেমের প্রস্তাব দেয়ায় শিক্ষকের নাক ফাটালেন শিক্ষিকা!

প্রেমের প্রস্তাব দেয়ায় শিক্ষকের নাক ফাটিয়ে দিলেন এক শিক্ষিকা।

বুধবার দুপুরে রংপুর কালেক্টরেট স্কুল অ্যান্ড কলেজে এ ঘটনা ঘটে। তবে শিক্ষক-শিক্ষিকা উভয়ই ব্যাপারটি অস্বীকার করছেন।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বুধবার দুপুরে শিক্ষক কমনরুমে কালেক্টর স্কুল অ্যান্ড কলেজের চারুকারু শিক্ষক শহিদুল ইসলাম ডাবলু একই প্রতিষ্ঠানের প্রাইমারী শাখার শিক্ষিকা গুলশান-আরাকে প্রেমের প্রস্তাব দেন। এনিয়ে উভয়ের মধ্যে শুরু হয় বাকবিতণ্ডা।

এক পর্যায়ে ক্ষুদ্ধ গুলশান-আরা শিক্ষক শহিদুল ইসলাম ডাবলুর নাকের মধ্যে সজোরে আঘাত করেন। এতে ওই শিক্ষকের নাক ফেটে ফিনকি দিয়ে রক্ত ঝরতে থাকে। পরে বিষয়টি প্রতিষ্ঠানের সবার মধ্যে জানাজানি হয়ে যায়।

বিষয়টি জানতে ঘটনাস্থলে সাংবাদিক প্রবেশ করতে চাইলে প্রতিষ্ঠানটির প্রধান ফটক থেকেই তাদের ফিরিয়ে দেন অধ্যক্ষ মঞ্জু-আরা পারভিন।

এ ব্যাপারে শিক্ষিকা গুলশান আরা জানান, আমাদের মধ্যে কোনো অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটে নাই।

অন্যদিকে শিক্ষক শহিদুল ইসলাম ডাবলু নাকে আঘাত পাওয়ার ব্যপারটি উড়িয়ে দিয়ে বলেন, নাকের এই অবস্থা তো কয়েকদিন ধরেই এরকম আছে। ম্যাডামের সঙ্গে কিছু হয়নি। সামান্য কথা কাটাকাটি হয়েছে।

অধ্যক্ষ অধ্যক্ষ মঞ্জু-আরা পারভিন জানান, আমি ওই সময় ব্যস্ত ছিলাম। শিক্ষক কমনরুমে কী হয়েছে তা আমার জানা নেই।

You Might Also Like