পাথরের নিচে শহর!

বিভিন্ন দেশে সুন্দর সুন্দর শহর গড়ে উঠলেও পাথরের নিচে শহরে গড়ে উঠেছে এমন কথা না জানারই কথা। সেতেনিল ডে লাস বোগাস নামে এমনই এক শহর গড়ে উঠেছে স্পেনে। পুরো শহরটিই পাথরের নিচে। এ শহরটিতে বর্তমানে বাস করছেন প্রায় তিন হাজার মানুষ।

ভাবছেন ওই শহরের মানুষগুলো পাথরটির নিচে তৈরি হওয়া প্রাকৃতিক গুহাগুলোতে বাস করছে। তবে আপনি ভুল ভাবছেন। মাথার ওপরের পাথরকে কেন্দ্র করেই তারা আধুনিক সব ঘরবাড়ি গড়ে তুলেছেন। আধুনিক সব রেস্তোরার পাশাপাশি শহরটিতে রয়েছে বার।

অদ্ভুত হওয়ার কারণেই প্রত্যেক বছর বেশ কিছু মানুষ শহরটি পরিদর্শন করে। উপরে পাথর থাকার কারণে উঁচু বাড়ি ঘর তুলতে না পারলেও পাথরটি ভাঙতে নারাজ ওই শহরের মানুষরা।

শহরের প্রতিটি ভবনে সাদা রং দেওয়া হয়েছে। ঘরের প্রতিটি কক্ষ বেশ ঝকঝকে ও পরিপাটি। সাদা রংয়ের দেয়ালে সকালের সোনা রোদ এসে ঝিকিমিকি করে। আবার সূর্যোদয়ের সময়ও ভবনে আলো-আঁধারের অপূর্ব এক খেলা চলে।

প্রাগৈতিহাসিক সময় থেকে লোকজন এসব ভবনে বসবাস করে আসছে। পর্যটকরা এই শহরে প্রবেশ করে ধাঁধায় পড়ে যায়। তারা মনে করে, স্থানীয়রা গুহায় বসবাস করছে। পাহাড়ি এসব বসতবাড়িতে নাতিশীতোষ্ণ আবহাওয়া বিরাজ করে। তাছাড়া শহরটিতে রয়েছে উন্নত মানের বার, রেস্টুরেন্ট ও খাবারের দোকান। নিত্যপ্রয়োজনীয় সব সামগ্রী এখানকার বাজারে সুলভে পাওয়া যায়।

You Might Also Like