পাকিস্তানে বিশ্ববিদ্যালয়ে বন্দুকধারীদের হামলা : নিহত ২১, আহত প্রায় অর্ধশতাধিক

পাকিস্তানের উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলের একটি বিশ্ববিদ্যালয়ে বুধবার বন্দুকধারীরা হামলা চালিয়েছে। এতে ৪ হামলাকারীসহ অন্তত ২১ জন নিহত হয়েছে।

মৃতের সংখ্যা আরো বাড়তে পারে বলে পুলিশ আশঙ্কা করছে। স্থানীয় সংবাদমাধ্যমের বরাত দিয়ে নিহতের সংখ্যা ২১ বলা হলেও উদ্ধার হওয়া এক শিক্ষার্থী ৬০ থেকে ৭০ জনের দেহ পড়ে থাকতে দেখেছেন বলে দাবি করেছেন।

বিশ্ববিদ্যালয়টির ভিসির বরাত দিয়ে বার্তাসংস্থা এএফপি জানিয়েছে, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানটির নাম বাচা খান বিশ্ববিদ্যালয়। এটি পেশোয়ার থেকে ৫০ কিলোমিটার দূরে চরসাদ্দা এলাকায় অবস্থিত।

বুধবার স্থানীয় সময় সকাল ৯.৩০ এ কিছু বন্দুকধারী বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে অতর্কিতে হামলা চালায়। এসময় বাহিরে থেকে বড় ধরণের ২ টি বিষ্ফোরণের শব্দ শোনা যায়।

পুলিশ ও সেনাবাহিনীর যৌথ অভিযানে ৪ হামলাকারী নিহত হলেও ধারণা করা হচ্ছে বিশ্ববিদ্যালয় ভবনের দ্বিতীয় ও তৃতীয় তলায় এখনো অবস্থান করছে তারা।

বিশ্ববিদ্যালয়ের মূল ফটকে অ্যাম্বুলেন্স, পুলিশ ও সেনাবাহিনীর উদ্ধারকারী গাড়ি এবং উদ্বিগ্ন অভিভাবকরা ভিড় করেছেন। পুলিশের এক উর্দ্ধতন কর্মকর্তা জানিয়েছেন, কমপক্ষে ৭০% ছাত্রছাত্রীকে উদ্ধার করা সম্ভব হয়েছে।

পুলিশের একটি সূত্র জানিয়েছে, হামলাকারীর সংখ্যা অনুমান করা যাচ্ছে না্। ‌এখনো ৮/১০ জন বন্দুকধারী ভিতরে অবস্থান করতে পারে বলে পুলিশ আশঙ্কা করছে।

প্রখ্যাত কবি বাচা খানের স্মরণসভার জন্য বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রায় ৩,০০০ ছাত্রছাত্রী জড়ো হয়েছিলেন। ঘন কুয়াশার কারণে পুলিশ উদ্ধার তৎপরতা চালাতে হিমশিম খাচ্ছে।

প্রসঙ্গত, ২০১৪ সালের ডিসেম্বরে পেশোয়ারে সামরিক বাহিনীর একটি বিদ্যালয়ে তালেবানের হামলায় দেড় শতাধিক শিক্ষার্থীর মৃত্যু হয়।

সূত্র: ডন, এএফপি

You Might Also Like