নারায়ণগঞ্জে গণধর্ষণের শিকার গার্মেন্টকর্মী

নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজারে বাড়ি ফেরার পথে গণর্ধষণের শিকার হয়েছেন এক নারী গার্মেন্টকর্মী (২২)। সোমবার রাতে ওই ভুক্তভোগী নারী অজ্ঞাত ৫ জনকে আসামি করে আড়াইহাজার থানায় মামলা দায়ের করেছেন।

মামলার বরাত দিয়ে আড়াইহাজার থানার ওসি নজরুল ইসলাম বলেন, ভুক্তভোগী নারী সোনারগাঁ উপজেলার কাঁচপুরে একটি গার্মেন্টে কাজ করেন। গত ৮ আগস্ট রাত সাড়ে ৮টায় কাঁচপুরের বাসা থেকে আড়াইহাজার শ্বশুরবাড়ির উদ্দেশে রওনা হন।

রাত সাড়ে ১০টায় আড়াইহাজার কাকাইল মোড়া খেয়াঘাটের সামনে রিকশার জন্য অপেক্ষা করতে থাকেন। এ সময় অজ্ঞাত চার যুবক বাড়ি পৌঁছে দেয়ার আশ্বাস দিলে ওই নারী তাদের সঙ্গে শ্বশুরবাড়ির উদ্দেশে রওনা হন। পথিমধ্যে যুবকরা ওই নারীকে চোখ-মুখ বেঁধে পাশের ধানক্ষেতে নিয়ে ধর্ষণ করে।

প্রায় দুই ঘণ্টা পর এলাকাবাসী নারীর চিৎকার শুনে এগিয়ে এলে যুবকরা পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয় এক ব্যক্তি ভুক্তভোগী নারীকে উদ্ধার করে শ্বশুরবাড়িতে পৌঁছে দেন। কিন্তু রহস্যজনক কারণে ওই ৪ যুবকের পাশাপাশি নারীকে বাড়িতে পৌঁছে দেয়া ব্যক্তির বিরুদ্ধেও মামলা করা হয়।

ওসি আরও বলেন, ভুক্তভোগী নারী প্রথমে লোকলজ্জার ভয়ে বিষয়টি গোপন রাখলেও পরবর্তীতে স্বামী বিষয়টি জানতে পারলে সোমবার রাত সাড়ে ১০টায় ভুক্তভোগী নারী ৫ জনকে অজ্ঞাত আসামি করে মামলা দায়ের করেন। এ ঘটনায় এখনও কাউকে আটক করা হয়নি।

মঙ্গলবার সকালে ওই নারীকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য নারায়ণগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। অভিযুক্তদের গ্রেফতারে অভিযান অব্যাহত আছে।

You Might Also Like