দেশে এনে তারেককে পাগলা গারদে রাখতে হবে: শাজাহান

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে নিয়ে একের পর এক বিতর্কিত মন্তব্য করায় বিএনপির জ্যেষ্ঠ ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানকে ‘পাগল’ আখ্যায়িত করেছেন নৌমন্ত্রী শাজাহান খান।

শনিবার শাহবাগে পাবলিক লাইব্রেরি মিলনায়তনে এক অনুষ্ঠানে তিনি বলেন, “আমাদের দেশে একটাই পাগলা গারদ রয়েছে। যা অবস্থা দেখা যাচ্ছে তাতে তারেকদের দেশে ফিরিয়ে এনে সেই পাগলা গারদেই ভরতে হবে।”

বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে ‘কটূক্তি’ করায় তারেক রহমানের তীব্র সমালোচনা করে মন্ত্রী বলেন, “আরে ব্যাটা, বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে কথা বলার আগে তো তোর একবার সালাম দেওয়া উচিৎ।

“বঙ্গবন্ধুর কোনো রাজনৈতিক ভুল ছিল কি না আমি জানি না। তবে স্বাধীনতার পর পাকিস্তানি জেনারেল জানজুয়ার আতিথেয়তায় থাকা খালেদাকে যখন জিয়া অস্বীকার করেছিলেন, সেসময় বঙ্গবন্ধুই তার পরিবার বাঁচিয়েছিলেন।”

গত বুধবার লন্ডনে যুক্তরাজ্য বিএনপি আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে বঙ্গবন্ধুকে ‘স্বাধীনতাকামী মানুষের হত্যাকারী’ মন্তব্য করে তার বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহের মামলা করার দাবি জানান তারেক রহমান।

আলোচনা সভায় বিএনপিকে ‘স্বাধীনতার শত্রু’ আখ্যা দিয়ে শাজাহান খান বলেন, “সবাই বলে জামায়াত নাকি স্বাধীনতার সবচেয়ে বড় শত্রু। প্রকৃতপক্ষে সবচেয়ে বড় শত্রু হল বিএনপি। জামায়াতের কোনো গণভিত্তি নাই, স্বাধীনতার পরে এদেশে বিএনপিই তাদের লালন-পালন করছে।”

যুদ্ধাপরাধীদের শাস্তির প্রতিবাদে হরতাল ডাকায় জামায়াতের সমালোচনা করে তিনি বলেন, “হরতালের নামে মানুষ হত্যা গণতান্ত্রিক কর্মকাণ্ড নয়। যারা এগুলো করে তাদের রাজনীতি করার অধিকার থাকতে পারে না। এদের বিরুদ্ধে জনগণকে সোচ্চার হতে হবে।