জেএমসিতে প্রবীণদের ব্যতিক্রমী অবকাশ  অনুষ্ঠান

ইউএনএ : জ্যামাইকা মুসলিম সেন্টারে (জেএমসি) পরিচালিত দেশী সিনিয়র সেন্টার পবিত্র রমজান মাসে বন্ধ থাকবে। রমজানের পর আগামী ২০ জুলাই দেশী সিয়র সেন্টারের কার্যক্রম পুনরায় চালু হবে। আর এই বন্ধের আগে গত ১০ জুন দুপুরে জেএমসিতে আয়োজন করা হয় প্রবীণদের অবকাশ অনুষ্ঠান। ব্যতিক্রমী এই অনুষ্ঠানে অতিথি ছিলেন কুইন্স বরো প্রেসিডেন্ট মেলিন্ডা ক্যাট্্স ও নিউইয়র্কস্থ বাংলাদেশ কনস্যুলেটে নিযুক্ত কনসাল জেনারেল শামীম আহসান ও স্থানীয় সিটি কাউন্সিলম্যান রোরী ল্যান্সম্যান। এছাড়াও মূলধারার রাজনীতিক ও কমিউনিটি নেতৃবৃন্দ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন। উল্লেখ্য, দেশী সিনিয়র সেন্টার পরিচালনায় প্রধান আর্থিক যোগানদাতা প্রতিষ্ঠান হচ্ছে ইন্ডিয়া হোম।JMC_Q Baro P Melinda Cats

দেশী সিনিয়র সেন্টারের প্রোগ্রাম ডাইরেক্টর নার্গিস আহমেদের উপস্থাপনায় অনুষ্ঠানে অতিথিবৃন্দ ছাড়াও অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন জ্যামাইকা মুসলিম সেন্টার পরিচালনা কমিটির সভাপতি ডা. ওয়াহিদুর রহমান, ট্রাষ্টি বোর্ডের চেয়ারম্যান ডা. মোহাম্মদ এম রহমান, সভাপতি ডা. এম এম বিল্লাহ ও কাজী আব্দুল হালিম, বর্তমান JMC_Deshi S. Centerসেক্রেটারী মোহাম্মদ আখতার হোসেন, ইন্ডিয়া হোমের নির্বাহী পরিচালক ডা. বসুন্ধরা কালাসাপুডি, ইন্ডিয়া হোমের প্রেসিডেন্ট ডা. ক্যারন ডেবী, বাংলাদেশ এসোসিয়েশন অব নিউজার্সীর সাবেক সভাপতি ডা. চৌধুরী ফারুক আজম, এটর্নী মঈন চৌধুরী ও কমিউনিটি বোর্ড মেম্বার মোহাম্মদ ফখরুল ইসলাম দেলোয়ার।

অনুষ্ঠানে দেশী সিনিয়র সেন্টারের স্বেচ্ছাসেবী প্রশিক্ষকসহ সংশ্লিষ্টদের সম্মানিত করা হয়। সম্মানিত ব্যক্তিরা হচ্ছেন: ইমাম মওলানা মির্জা আবু জাফর বেগ, ডা. এম এস বিল্লাহ, ডা. চৌধুরী, ডা. ফারুক আজম, এটর্নী মঈন চৌধুরী, ডা. মোহাম্মদ রশীদ, ডা. ইমরুল কবীর, ডা. ওয়াহিদুর রহমান, ডা. মোহাম্মদ এম রহমান, মোহাম্মদ আকতার হোসেন ও সোহেল খান। এছাড়াও সিনিয়র সেন্টারের তরুণ ও বয়স্ক পুরুষ স্বেচ্ছাসেবকদের মাঝে পাঞ্জাবী এবং নারী স্বেচ্ছাসেবীদের মাঝে পুরষ্কার হিসেবে শাড়ী দেয়া হয়। একই সাথে সবাইকে সনদপত্রও প্রদান করা হয়।JMC_Dr. M Rahman

উল্লেখ্য, গত বছরের ১ ডিসেম্বর থেকে জ্যামাইকা মুসলিম সেন্টারে দেশী সিনিয়র সেন্টারের যাত্রা শুরু হয়। জ্যামাইকাসহ আশপাশে বসবাকারী প্রবীণ বাংলাদেশী-আমেরিকান তথা দক্ষিণ এশিয়ান প্রবীণ আমেরিকানদের অবসর সময়
সুন্দরভাবে কাটানোর লক্ষ্যেই স্থানীয় সিটি কাউন্সিলম্যান রোরী ল্যান্সম্যান সহ কমিউনিটি নেতৃবৃন্দের আগ্রহ ও উদ্যোগেই এই সেন্টার প্রতিষ্ঠা করা হয়।

ষাট বছর বয়সের কম নয় এমন নর-নারী দেশী সিনিয়র সেন্টারের সদস্য/সদস্যা হতে পারেন। সদস্যদের জন্য বিনামূল্যে হালাল খবার সরবরাহ ছাড়াও বিনোদন ও ব্যায়াম করার সকল ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। সপ্তাহে তিনদিন অর্থাৎ সোম, বুধ ও বৃহস্প্রতিবার সকাল ৯টা থেকে বেলা ২টা পর্যন্ত এর সেন্টারের কার্যক্রম চলে। সেন্টারের উন্নয়নে সিটি প্রশাসন ইতোমধ্যেই এক লাখ ১০ হাজার ডলার অনুদান ঘোষণা করেছে।

JMC_Q Baro P Melinda Cats-1

JMC_Dr. Wahidur Rahman

You Might Also Like