বাড়ির পাশে ঝুলছিল নিখোঁজ সেবায়েতের লাশ

নিখোঁজের ১৩ দিন পর বাড়ির পাশ থেকেই উদ্ধার করা হলো যশোরের কেশবপুর উপজেলার মন্দিরের সেবায়েত প্রদীপ মল্লিকের (৪৭) ঝুলন্ত লাশ।
আজ শুক্রবার সকালে প্রদীপের বাড়ি উপজেলার গৌরীঘোনা গ্রামের একটি আমগাছ থেকে তাঁর লাশ উদ্ধার করা হয় বলে জানান কেশবপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মাসুদুর রহমান।
পরিদর্শক আরো জানান, প্রদীপের শরীরে কোনো আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায়নি। তবে নিশ্চিত হওয়ার জন্য লাশ ময়নাতদন্তের জন্য যশোর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। প্রতিবেদন পাওয়ার পর আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে। আপাতত একটি অপমৃত্যুর মামলা হয়েছে।
প্রদীপ মল্লিক খুলনার ডুমুরিয়া উপজেলার কাঁঠালতলা স্বামী ভাস্কর আনন্দ আশ্রম মন্দিরের সেবায়েত ছিলেন।
প্রদীপের স্ত্রী শিখা রাণী মল্লিক জানান, গত ৪ জুন বিকেলে তাঁর স্বামী বাড়ি থেকে ওষুধ কেনার জন্য উপজেলার গৌরীঘোনা বাজারে যান। এর পর থেকে তাঁর আর কোনো সন্ধান মেলেনি।
কোথাও সন্ধান না পেয়ে প্রদীপের ভাই বিদ্যুৎ মল্লিক ৭ জুন কেশবপুর থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন।

You Might Also Like