হোম » জাতিসংঘের তদন্ত প্রতিবেদন সরাসরি প্রত্যাখ্যান করল সিরিয়া

জাতিসংঘের তদন্ত প্রতিবেদন সরাসরি প্রত্যাখ্যান করল সিরিয়া

ঢাকা অফিস- Saturday, October 28th, 2017

সিরিয়ার খান শেইখুনে রাসায়নিক হামলার যে তদন্ত প্রতিবেদন জাতিসংঘ প্রকাশ করেছে তাকে ‘সত্যের বিকৃতি’ বলে প্রত্যাখ্যান করেছে দামেস্ক।

সিরিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এক বিবৃতিতে বলেছে, “জাতিসংঘ ও রাসায়নিক অস্ত্র নিষিদ্ধকরণ সংস্থা বা ওপিসিডাব্লিউ যৌথভাবে যে প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে তার বিষয়বস্তু সুস্পষ্টভাবে প্রত্যাখ্যান করছে দামেস্ক।”

জাতিসংঘ এবং ওপিসিডাব্লিউ’র যৌথ তদন্ত কমিটি শুক্রবার সিরিয়ার ইদলিব প্রদেশের খান শেইখুনে চলতি বছরের এপ্রিলে চালানো রাসায়নিক হামলার তদন্ত প্রতিবেদন প্রকাশ করে। প্রতিবেদনে ওই হামলার জন্য সিরিয়া সরকারকে দায়ী করা হয়।

সিরিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিবৃতিতে বলা হয়, “প্রতিবেদনটিতে সত্যের অপলাপ করা হয়েছে এবং খান শেইখুনে যা ঘটেছে সে সংক্রান্ত তথ্য বিকৃতি করা হয়েছে।”
গত ৪ এপ্রিল সিরিয়ার ইদলিব প্রদেশের খান শেইখুন শহরে সারিন গ্যাস হামলায় অন্তত ৮০ ব্যক্তির মর্মান্তিক মৃত্যু হয়। ওই ঘটনার পরপরই কোনো প্রমাণ উপস্থাপন ছাড়াই উগ্র তাকফিরি সন্ত্রাসী গোষ্ঠীগুলোর পাশাপাশি পশ্চিমা সরকারগুলো এ হামলার জন্য সিরিয়া সরকারকে দায়ী করে।

সিরিয়া সরকার এ পর্যন্ত বহুবার ওই অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করে বলেছে, উগ্র সন্ত্রাসীদের মজুদ করা রাসায়নিক গ্যাস বিস্ফোরিত হয়ে ওইসব হতভাগ্য মানুষ নিহত হয়েছে। দামেস্ক বলছে, ২০১৩ সালে আমেরিকার সঙ্গে রাশিয়ার স্বাক্ষরিত এক চুক্তি অনুযায়ী দামেস্কের হাতে থাকা সব রাসায়নিক অস্ত্র ধ্বংস করা হয়েছে; কাজেই সিরিয়া সরকারের হাতে এখন হামলা চালানোর মতো কোনো রাসায়নিক গ্যাস নেই।