জনতার সামনে আসছেন ওবামা

প্রাক্তন মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা ক্ষমতা ছাড়ার পর প্রথমবারের মতো জনতার সামনে আসছেন।

প্রায় তিন মাসের আড়াল ভেঙে সোমবার নিজ শহর শিকাগোতে তিনি জনসম্মুখে আসছেন। গত জানুয়ারিতে নতুন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প দায়িত্ব নেওয়ার পর থেকেই লোকচক্ষুর আড়ালে চলে যান ওবামা।

ওবামা ওই দিন শিকাগো ইউনিভার্সিটিতে শিক্ষার্থীদের সঙ্গে আলোচনা সভায় অংশ গ্রহণ করবেন বলে তার পক্ষ থেকে শুক্রবার জানানো হয়েছে।

প্রেসিডেন্ট হিসেবে ক্ষমতা গ্রহণের আগে শিকাগো ইনিভার্সিটিতে আইন বিষয়ে পড়াতেন তিনি।

ক্ষমতা ছাড়ার আগে নিজ শহর শিকাগোতেই তার বিদায়ী ভাষণ দিয়েছিলেন। হোয়াইট হাউস ছাড়ার দিন তিনি তার পূর্বসূরি জর্জ ডব্লিউ বুশের প্রশংসা করেন। যিনি ক্ষমতা ছাড়ার পর জনসম্মুখে কোনো মন্তব্য করেননি এবং সক্রিয়ভাবে রাজনীতি করা থেকে বিরত থেকেছেন। ওবামাও হোয়াইট হাউস ছাড়ার পর থেকে রাজনৈতিক মন্তব্য করেননি।

আয়োজকরা জানিয়েছেন, ওবামার ওই সমাবেশ প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের বিরুদ্ধে ডেমেক্রেটদের সমর্থনের জন্য নয়। অবশ্য এর আগে নির্বাচনের সময় তার বিরুদ্ধে ফোনে আড়িপাতার অভিযোগ তুলেছিলেন ট্রাম্প। ওবামার সমর্থকরা এ নিয়ে ট্রাম্পের ওপর চটেছিলেনও।

এক বিবৃতির মাধ্যমে বারাক ওবামা জানিয়েছেন, মুসলিম প্রধান দেশগুলো থেকে যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশে ট্রাম্প যে নিষেধাজ্ঞা আরোপের চেষ্টা করছে, তিনি সে বিষয়টি সমর্থন করেন না।

গত মাসে ট্রাম্পের উত্থাপিত স্বাস্থ্যবিল বাতিল হয়ে গেছে সংখ্যাগরিষ্ঠ সমর্থন না পেয়ে। সিরিয়াতে ৫৯টি ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালানোর নির্দেশ দিয়েছেন ট্রাম্প। উত্তর কোরিয়ার ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষাকে কেন্দ্র করে কোরীয় উপদ্বীপে মার্কিন যুদ্ধজাহাজ পাঠিয়ে পিয়ংইয়ং-এর সঙ্গেও বৈরিতা বাড়িয়েছেন তিনি। এ ছাড়া রাশিয়ার সঙ্গেও সম্পর্কে চিড় ধরেছে।

তবে এত কিছুর পরেও নীরব আছেন বারাক ওবামা। বিশ্বের প্রভাবশালী সাবেক এই প্রেসিডেন্টও হয়তো জর্জ ডব্লিউ বুশের মতোই রাজনীতি থেকে একেবারে দূরে চলে যাবেন।

You Might Also Like