ছাত্রলীগের সবাই নেতা হতে চায়: কাদের

ছাত্রলীগের সবাই এখন নেতা হতে চায় বলে মন্তব্য করেছেন সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।
শনিবার বাগেরহাটে জেলা ছাত্রলীগের বার্ষিক সম্মেলনে একথা বলেন তিনি।
ছাত্রলীগকে উদ্দেশ্য করে এই মন্ত্রী বলেন, ‘তোমাদের বঙ্গবন্ধুর জীবন-আদর্শ থেকে শিক্ষা লাভ করতে হবে। যদি ছাত্রলীগ বঙ্গবন্ধুর জীবনী পড়ত তাহলে আজ এ অবস্থা হত না। এখন স্টেজে সবাই মুখ দেখাতে চায়, সবাই নেতা হতে চায়। নেতার ভারে স্টেজ আজ কাঁপছে। সামনে কোন কর্মী নেই। তোমাদের কর্মী হতে হবে।’
সামনে থেকে তৃনমূল কর্মীদের নেতৃত্ব দিতে হবে। তাহলেই প্রকৃত নেতা হওয়া যাবে বলেও মন্তব্য করেন সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী।
বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে উদেশ্য করে তিনি বলেন, ‘হাওয়া ভবনের লোকজন দেশের সম্পদ খাওয়া ছাড়া কিছুই করে নাই।’
এসময় তিনি আরো বলেন, ‘বিএনপি সরকারের সময় মংলা বন্দরকে বন্ধ করে দেওয়া হয়েছিল। শেখ হাসিানার সরকার ক্ষমতায় আসার পর মংলা বন্ধর পুনরায় চালু করেছে। বিদেশ থেকে আমদানীকৃত পন্যের ৪৫ ভাগ এখন মংলা বন্দর দিয়ে খালাস করা হচ্ছে ফলে গতিশীল হচ্ছে মংলা বন্দর।’
পদ্ম সেতু প্রসঙ্গে মন্ত্রী বলেন, ‘অনেকেই বলে ছিল দেশের টাকায় পদ্ম সেতু নির্মাণ সম্ভব না। কিন্তু শেখ হাসিনার সরকার দেশের টাকায় পদ্ম সেতুর নির্মাণ কাজ শুরু করেছে। অচিরেই পদ্ম সেতুর সুফল এ অঞ্চলের মানুষ ভোগ করবে। ঢাকায় যেতে আসতে সময় লাগবে মাত্র সাড়ে ৩ ঘণ্টা।’
এর আগে সকালে জেলা ছাত্রলীগের বার্ষিক সম্মেলনে উদ্বোধন করেন কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ সভাপতি এইচএম বদিউজ্জামান সোহাগ। জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি সরদার নাসির উদ্দিনের সভাপতিত্বে সম্মেলনে সম্মানিত অতিথি হিসাবে বক্তৃতা করেন, বঙ্গবন্ধুর ভাতিজা বাগেরহাট-১ আসনের এমপি শেখ হেলাল উদ্দিন।
এসময় অন্যান্যদের মধ্যে সমাজ কল্যান মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি ডাঃ মোজাম্মেল হোসেন, মৎস্য ও প্রাণী সম্পদ মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি এ্যাডভোকেট মীর শওকাত আলী বাদশা, কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সিদ্দিকী নাজমুল আলম, পৌর মেয়র খান হাবিবুর রহমান, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান খান মুজিবুর রহমান, জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক মীর জায়েসী আশরাফী জেমস, সম্মেলন প্রস্তুত কমিটির আহবায়ক লিটন সরকারসহ প্রমুখ বক্তৃতা করেন।

You Might Also Like