গ্রামবাসীর সঙ্গে তাবলীগের সংঘর্ষে নিহত ১

বেলাবো উপজেলায় গ্রামবাসীর সঙ্গে তাবলীগ জামাতের লোকজন ও পুলিশের সংঘর্ষে একজন নিহত হয়েছে। এতে আহত হয়েছে অন্তত ১০ জন।

রোববার রাত সাড়ে ৮টার দিকে উপজেলার বারইচা গ্রামে এ সংঘর্ষ হয়। তাৎক্ষণিকভাবে নিহতের নাম পরিচয় জানা যায়নি।

খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করে। পরে আহতদের উদ্ধার করে স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করে দেয়।

স্থানীয়রা জানায়, সকালে ব্রাহ্মণবাড়িয়া থেকে তাবলীগ জামাতের একদল লোক আসেন বেলাবো উপজেলার বারইচা গ্রামে। তারা বারইচা বাজার জামে মসজিদে অবস্থান নেয়। তবে গ্রামবাসী দুপুরের মধ্যে ওই মসজিদ ত্যাগ করার জন্য তাদের বলে। কিন্তু তাবলীগের লোকজন অস্বীকৃতি জানিয়ে ওই মসজিদের ইমামকে ডেকে মসজিদ ত্যাগ করার কারণ জানতে চান। ইমাম সদুত্তর দিতে না পারায় তাকে আটকে রাখেন তাবলীগ জামাতের লোকজন।

এ ঘটনায় ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠেন গ্রামাবাসী। এতে উভয় পক্ষের মধ্যে উত্তেজনা সৃষ্টি হয়। এক পর্যায়ে তাবলীগ জামাতের লোকজনের ওপর গ্রামবাসী হামলা করলে সংঘর্ষ বাঁধে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে আসে বেলাবো থানা পুলিশ। এসময় গ্রামবাসীর সঙ্গে তাবলীগ ও পুলিশের ত্রিমুখী সংঘর্ষ লেগে যায়। এতে আহত হয় অন্তত ১০ জন।

আহতদের মধ্যে দুইজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক হয় তাদের বেলাবো হাসপাতাল থেকে নরসিংদী জেলা হাসপাতালে রেফার করে চিকিৎসকরা। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় অজ্ঞাতনামা (৩৫) এক ব্যক্তির মৃত্যু হয়।

হাসপাতালে কর্তব্যরত চিকিৎসক একজন নিহতের বিষয়টি স্থানীয় সাংবাদিকদের নিশ্চিত করেন।

বেলাবো থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বদরুল আমিন জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ফোর্স পাঠানো হয়। তারা গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করে। বর্তমানে ওই গ্রামে উত্তেজনা বিরাজ করায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

You Might Also Like