খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে কর্মসূচি দেবে ২০ দল

বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে জুলাই মাসে ঢাকাসহ বিভিন্ন মহানগরে কর্মসূচি দেবে ২০ দলীয় জোট। ২৪ জুন সোমবার রাতে রাজধানী ঢাকার গুলশানে বিএনপি চেয়ারপারসনের কার্যালয়ে ২০ দলীয় জোটের বৈঠকের পর জোটের সমন্বয়ক নজরুল ইসলাম খান এ কথা জানান।

নজরুল ইসলাম খান বলেন, ২০ দলীয় জোটের নেত্রী ও বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে রাজনৈতিক প্রতিহিংসার বশে কারাগারে আবদ্ধ করে রাখার নিন্দা ও তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছেন জোটের নেতারা। দেশে গণতন্ত্র পুনঃপ্রতিষ্ঠার আন্দোলনের প্রধান নেত্রী বেগম জিয়ার দ্রুত মুক্তির লক্ষ্যে আগামী জুলাই মাসে ঢাকাসহ বিভিন্ন মহানগরে কর্মসূচি পালনের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে ২০ দলীয় জোট। এ ব্যাপারে আগামী জোটের সভায় নির্দিষ্ট সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

এক প্রশ্নের জবাবে নজরুল ইসলাম খান বলেন, ২০ দলীয় জোট বিরাট শক্তি। এ জোটে ঐক্য সুদৃঢ় আছে, এখানে কোনো সংকট নেই।

সোমবার রাত ৮টায় ২০ দলীয় জোটের বৈঠক শুরু হয়। বৈঠকে দেশের রাজনৈতিক পরিস্থিতি, প্রস্তাবিত বাজেট, কৃষকদের উৎপাদিত পণ্যে ন্যায্যমূল্য নির্ধারণসহ নানা বিষয় নিয়ে আলোচনা হয়।

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলামের সভাপতিত্বে বৈঠকে নজরুল ইসলাম খান, ইসলামী ঐক্যজোটের অ্যাডভোকেট এম এ রকীব, জাতীয় পার্টির (কাজী জাফর) জাফরুল্লাহ খান চৌধুরী লাহরি, জমিয়তে উলামায়ে ইসলামের একাংশের মাওলানা নূর হোসেইন কাশেমী, অপর অংশের মাওলানা মহিউদ্দিন ইকরাম, এনডিপিপির ফরিদুজ্জামান ফরহাদ, লেবার পার্টির মোস্তাফিজুর রহমান ইরান, ন্যাপ-ভাসানীর আজহারুল ইসলাম, জাগপার খন্দকার লুৎফুর রহমান, এলডিপির সাহাদাত হোসেন সেলিম, বাংলাদেশ কল্যাণ পার্টির এম এম আমিনুর রহমান, মুসলিম লীগের জুলফিকার বুলবুল চৌধুরী, পিপলস লীগের সৈয়দ মাহবুব হোসেন, ডিএলের সাইফুদ্দিন আহমেদ মনি, সাম্যবাদী দলের নুরুল ইসলাম, ন্যাপের শাওন সাদেকী, এনডিপির আবু তাহের প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

আজকের বৈঠকে জামায়াতে ইসলামীর কোনো প্রতিনিধি ছিলেন না।

You Might Also Like