খাবার দিতে রাজি না হওয়ায় রোজাদার স্ত্রীকে পিটিয়ে খুন

নাটোরের বাগাতিপাড়ায় রোজার দিন দুপুরে খাবার দিতে না চাওয়ায় রোজাদার স্ত্রীকে পিটিয়ে হত্যা করেছে তার স্বামী। এ ঘটনায় পুলিশ নিহতের স্বামীকে আটক করেছে।

পুলিশ বুধবার রাতে নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য নাটোর আধুনিক সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠিয়েছে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, বাগাতিপাড়া উপজেলার চন্দ্রখৈড় গ্রামের মারুফ হোসেনের সঙ্গে সাত মাস আগে পারিবারিক ভাবে বিয়ে হয় একই জেলার বড়াইগ্রাম উপজেলা সদরের মেয়ে ইমা খাতুনের (১৯)।

বুধবার দুপুরের পর ইমার স্বামী মারুফ হোসেন বাড়ি এসে স্ত্রীকে ভাত দিতে বলে। স্বামী রোজা না রাখায় ইমা খাতুন তাকে রোজার দিন দুপুরে খাবার দিবে না বলে জানায়।

এক পর্যায়ে স্বামী মারুফ হোসেন স্ত্রী ইমার মাথায় সজোরে চপেটাঘাত করতে ইমা মাটিতে পড়ে যায়। পরে লোকজন এসে তাকে মাথায় পানি দিয়ে সুস্থ্য করার চেষ্টা করলে দেখতে পায় ইমা মারা গেছে।

খবর পেয়ে ইমার বাবার বাড়ির লোকজন এসে মারুফকে আটক করে পুলিশে খবর দেয়।

বুধবার ইফতারের পর নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য নাটোর আধুনিক সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠায় পুলিশ। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে মারুফ হোসেনকে আটক করা হয়।

বাগাতিপাড়া মডেল থানার ওসি আমিনুর রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। (দৈনিক যুগান্তর থেকে সংগৃহীত খবর)

You Might Also Like