কোটি টাকার ইয়াবাসহ ২ পুলিশ আটক

বিভিন্ন সময়ে ইয়াবা ব্যবসায়ীদের কাছ থেকে উদ্ধার করা ইয়াবা থেকে জমিয়ে ঢাকায় পাচারের সময় আটক হয়েছেন দুই পুলিশ সদস্য। তাদের কাছ থেকে উদ্ধার করা হয়েছে কোটি টাকার ইয়াবা ও নগদ ১০ লাখ টাকা।
ইয়াবা নিয়ে আটক হওয়া দুই পুলিশ সদস্য হলেন- চকোরিয়া থানার উপ-পরির্দশক (এসআই) আকতার ও কনস্টেবল দেলোয়ার।
বৃহস্পতিবার গভীর রাতে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে সীতাকুণ্ডের ফৌজদার হাট এলাকা থেকে এ দুজনকে আটক করা হয়। এ সময় তাদের ব্যবহৃত একটি প্রাইভেট কারও জব্দ করা হয়।
জেলা পুলিশের একাধিক সূত্র বিষয়টি নিশ্চিত করলেও আনুষ্ঠানিকভাবে কোনো পুলিশ কর্মকর্তাই তা স্বীকার করেননি।
সূত্র জানায়, প্রায় কোটি টাকা মূল্যের ইয়াবা নিয়ে চকোরিয়া থানা থেকে ঢাকার এক মাদক ব্যবসায়ীর কাছে বিক্রির জন্য একটি প্রাইভেট কারে করে রাতে রওনা দেন এই পুলিশ সদস্যরা। ঢাকার ওই ব্যবসায়ীর কাছ থেকে অগ্রিম ১০ লাখ টাকাও নেন আটক পুলিশ সদস্যরা। চকোরিয়া থানায় বিভিন্ন সময়ে আটক হওয়ার ইয়াবা থেকে জব্দকৃত ইয়াবার সংখ্যা কম দেখিয়ে জমিয়ে রাখা ইয়াবাগুলোই বিক্রির জন্য ঢাকায় নিয়ে যাওয়া হচ্ছিল বলে সূত্র নিশ্চিত করেছে। তাদের আটকের পর প্রথমে সীতাকুণ্ড থানায় রাখা হলেও সকালে পুলিশের চট্টগ্রাম রেঞ্জের ডিআইজি কার্যালয়ে নিয়ে যাওয়া হয়।
এদিকে ঘটনাটি ধামাচাপা দিতে পুলিশের পক্ষ থেকে কঠোর গোপনীয়তা রক্ষা করা হচ্ছে। সীতাকুণ্ড থানার এক এসআই জানান, জেলা পুলিশের একজন সহকারী পুলিশ সুপারের নেতৃত্বে ইয়াবা পাচারকারী দুই পুলিশ সদস্যকে আটক করা হয়। তবে এ বিষয়ে কোনো কথা বলতে ওপরের নিষেধ আছে।
জেলা পুলিশের ট্রাফিক বিভাগের একজন পরিদর্শকও ইয়াবাসহ দুই পুলিশ আটকের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তবে সীতাকুণ্ড থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ইফতেখার হাসান বিষয়টি অস্বীকার করেন।
এ প্রসঙ্গে চট্টগ্রাম জেলা পুলিশ সুপার এম হাফিজ আক্তারের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, ‘এই ধরনের কোন সংবাদতো আমি শুনিনি। আপনার কাছ থেকে শুনলাম, দেখি আমি খোঁজ খবর নিয়ে দেখছি।’
এরপর পুলিশের চট্টগ্রাম রেঞ্জের ডিআইজি মো. শফিকুল ইসলামের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনিও বলেন, ‘এই ধরনের কোনো খবর আমাদের জানা নেই।’

You Might Also Like