এবার চীনা পরমাণু ক্ষেপণাস্ত্রের টার্গেট হবে আমেরিকা

চীন তার সাবমেরিনগুলোতে দীর্ঘ পাল্লার ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র বসাচ্ছে বলে মার্কিন কংগ্রেশনাল রিপোর্টে বলা হয়েছে। ফলে শিগগিরি চীনের সমুদ্রভিত্তিক পরমাণু অস্ত্র আমেরিকাকে লক্ষ্যবস্তুতে পরিণত করতে পারবে।

 

চীন-মার্কিন অর্থনৈতিক ও নিরাপত্তা বিষয়ক সিনেটের পর্যালোচনা কমিশনের পেশ করা রিপোর্টে বলা হয়েছে- চীনের জিন ক্লাস সাবমেরিনে অন্তত এক ডজন জেএল-২ ক্ষেপণাস্ত্র বসানো হবে। এসব ক্ষেপণাস্ত্রের পাল্লা ৭,৩৫০ কিলোমিটার এবং এগুলোকে যদি হাওয়াই দ্বীপের পশ্চিম অথবা পূর্ব পাশ থেকে ছোঁড়া হয় তাহলে আমেরিকার ৫০টি অঙ্গরাজ্যের সবগুলোতেই আঘাত হানতে পারবে চীন।

 

বর্তমানে চীন শুধু ভূমি থেকে ভূমিতে নিক্ষেপযোগ্য আন্তঃমহাদেশীয় ক্ষেপণাস্ত্র দিয়ে আমরিকায় হামলা করতে সক্ষম। কিন্তু প্রযুক্তিতে এগিয়ে থাকা আমেরিকার প্রথম আঘাতে হয়তো চীনের এসব অস্ত্র কিছুটা ক্ষতিগ্রস্ত হয়ে পড়তে পারে কিংবা অরক্ষিত হয়ে পড়বে। তবে, জিন ক্লাস সাবমেরিনে পরমাণু ক্ষেপণাস্ত্র বসানো হলে তা হবে চীনের জন্য বাড়িত সুবিধা। এছাড়া, চীন ভূমি থেকে হামলার জন্য সিজে-১০ ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্র প্রকল্পে বিপুল পরিমাণ অর্থ বিনিয়োগ করেছে।

 

অনেক বিশ্লেষক মনে করেন, সাবমেরিনভিত্তিক পরমাণু অস্ত্রের মজুদ গড়ে তোলার কারণে আমেরিকা চীনকে পরমাণু হামলার সাহস পাবে না।

You Might Also Like