‘ইত্যাদি’ ঈদের আয়োজনে যা থাকছে

ঈদের আনন্দের সাথে প্রতি বছরের মতো এবারও দর্শকদের জন্য বাড়তি আনন্দ নিয়ে আসছে হানিফ সংকেতের ‘ইত্যাদি’। প্রতি ঈদেই থাকে ‘ইত্যাদি’র জমকালো আয়োজন এবং চমকানো সব বিষয়। বরাবরের মতো এবারও একটি বিশাল সেটে প্রায় কয়েক হাজার দর্শকের উপস্থিতিতে ধারণ করা হয় ঈদের ‘ইত্যাদি’।

বরাবরের মতো এবারও ‘ইত্যাদি’ শুরু হয়েছে ‘ও মন রমজানের ঐ রোজার শেষে এলো খুশির ঈদ’ এই গানটি দিয়ে। গান এক হলেও প্রতিবারের মতো এবারও রয়েছে এর চিত্রায়নে বৈচিত্র্য। দুই মিনিটের এই গানটিতে অংশগ্রহণ করেছেন শতাধিক লোকশিল্পী। এবারের ঈদের একটি বিশেষ পর্ব হচ্ছে দেশাত্মবোধক গান। এই পর্বে একসঙ্গে গান গেয়েছেন ৯ জন জনপ্রিয় সংগীত তারকা। আর তারা হলেন সাবিনা ইয়াসমিন, এ্যান্ড্রু কিশোর, সামিনা চৌধুরী, শাকিলা জাফর, শুভ্রদেব, নকিব খান, ফাহমিদা নবী, বাপ্পা মজুমদার ও এস আই টুটুল।

দেশাত্মবোধক গানটি লিখেছেন মোহাম্মদ রফিকউজ্জামান এবং সংগীতায়োজন করেছেন আলী আকবর রূপু। বিদেশিদের নিয়ে এবারও রয়েছে একটি ব্যতিক্রমী আয়োজন। এই পর্বটিতে পৃথিবীর নানান দেশের প্রায় অর্ধ শতাধিক বিদেশি নাগরিক অংশগ্রহণ করেছেন। আর এবারের বিষয়বস্তু ‘কুসংস্কার’। ঈদের ‘ইত্যাদি’র একটি ব্যতিক্রমী পর্ব উপস্থাপনা করেছেন জনপ্রিয় অভিনয় তারকা তারিন। আর এতে অতিথি হিসেবে অংশগ্রহণ করেছেন অভিনেতা মীর সাব্বির, অপূর্ব, মিলন ও কণ্ঠশিল্পী আগুন।

এই প্রজন্মের জনপ্রিয় ৬ জন তারকাকে নিয়ে থাকছে তিনটি বিশেষ মিউজিক্যাল ড্রামা। বিদেশ থেকে এসে ঈদের কেনাকাটা নিয়ে ‘স্বামী-স্ত্রী’র দ্বন্দ্ব’, বিদেশি ও দেশি শাড়ি কেনা নিয়ে ‘ক্রেতা-বিক্রেতার দ্বন্ধ’ এবং দেশী পণ্য উপহার দেয়া নিয়ে ‘দুই বন্ধুর দ্বন্দ্ব’ এই নানাবিধ দ্বন্দ্ব নিয়ে তৈরি মিউজিক্যাল ড্রামার তিন পর্বে অংশগ্রহণ করেছেন অভিনেতা চঞ্চল চৌধুরী, জয়, দিপা খন্দকার, আরফান, ঈমন ও কুসুম শিকদার। প্রতি ঈদের মত এবারও রয়েছে ব্যাপক আয়োজনে বিষয়ভিত্তিক দলীয় সঙ্গীত। সাম্প্রতিক সময়ে আলোচিত কিছু বিষয় নিয়ে তৈরি এবারের দলীয় সংগীতে অংশগ্রহণ করেছেন ‘ইত্যাদি’র নিয়মিত নৃত্যশিল্পীরা।

প্রতিবারই ‘ইত্যাদি’র দর্শক নির্বাচন প্রক্রিয়া থাকে ভিন্ন রকম। এবারও তার ব্যতিক্রম হয়নি। প্রতিটি দর্শকের হাতে একটি করে বর্ণাঢ্য উপকরণ দিয়ে সেখান থেকে বাছাই করা হয়েছে অনুষ্ঠানের দ্বিতীয় পর্বের জন্য ৩ জন দর্শক। নির্বাচিত দর্শকদের সাথে পরবর্তী পর্বে অংশগ্রহণ করেন অভিনেতা পরিচালক জাহিদ হাসান।

মামার মানা সত্ত্বেও এবার ঈদেও মৌসুমী ব্যবসায়ী ভাগ্নে নতুন ব্যবসার পরিকল্পনা করেছে। কী সেই ব্যবসা? আর ওদিকে নানি-নাতিকে এবার দেখা যাবে স্টুডিওতে দর্শকদের সামনে। কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই পৃথিবীর বেশ ক’টি সিটি ঘুরে এসেছে নাতি। নাতির কথায় নানির অবিশ্বাস, আর এই নিয়েই তর্ক-বিতর্ক। ভাগ্নের ব্যবসা এবং নাতির সিটি ভ্রমণ জানতে হলে ঈদ পর্যন্ত অপেক্ষা করতেই হবে।

এছাড়া ঈদকে ঘিরে ডজনখানেক বিদ্রূপাত্মক রসালো নাট্যাংশ রয়েছে। বোকা সেজে ধোঁকা দেয়া, দাম্পত্য কলহে শিশুর ভূমিকা, চামচাদের চামচামি, পাত্রীর বাবার পাত্র দেখতে আসা ও পাত্রের গন্তব্য, ফেসবুক ও বিয়ে, নাট্যাভিনেত্রীর সাক্ষাত্কার, জোর করে নাটক দেখানো, সামাজিক সমস্যা ও সমাধানসহ বিভিন্ন বিষয়ে আরও কয়েকটি নাট্যাংশ রয়েছে। ইত্যাদি রচনা, পরিচালনা ও উপস্থাপনা করেছেন হানিফ সংকেত। নির্মাণ করেছে ফাগুন অডিও ভিশন। ঈদের ‘ইত্যাদি’ প্রচারিত হবে ঈদের পরদিন রাত ১০টা ১০ মিনিটে।

You Might Also Like