আটকে গেল ‘রইস’

বলিউড কিং শাহরুখ খান অভিনীত সিনেমা রইস। সিনেমাটিতে তার বিপরীতে অভিনয় করেছেন পাকিস্তানি অভিনেত্রী মাহিরা খান। ভারতীয় সিনেমার ওপর নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহারের পর রইস সিনেমাটি পাকিস্তানে মুক্তির কথা থাকলেও তা আটকে দিয়েছে দেশটির সেন্সর বোর্ড।

পাকিস্তানি সেন্সর বোর্ডের দাবি, রইস সিনেমাটিতে মুসলমানদের আপত্তিকরভাবে উপস্থাপন করা হয়েছে। শাহরুখ খান সিনেমাটিতে একজন মুসলিমের চরিত্রে অভিনয় করেছেন কিন্তু তাকে মদের ব্যবসা করতে দেখা গেছে।

সেন্সর বোর্ড সংশ্লিষ্ট একজন পাকিস্তানি সংবাদমাধ্যম দ্য এক্সপ্রেস ট্রিবিউনে বলেন, ‘মুসলমানদের সন্ত্রাসী, দাঙ্গাবাজ হিসেবে উপস্থাপন করায় সেন্সর বোর্ড মনে করে সিনেমাটি প্রদর্শনের যোগ্য নয়।’

তিনি আরো বলেন, ‘আমরা এটিকে সার্টিফিকেট দিইনি কারণ সিনেমাটি ইসলাম ও নির্দিষ্ট একটি মুসলিম সম্প্রদায়কে নেতিবাচকভাবে উপস্থাপন করেছে।’

এদিকে পাকিস্তানি সেন্সর বোর্ডের এমন সিদ্ধান্তে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন রইস সিনেমার পরিচালক রাহুল ডোলাকিয়া। মাইক্রোব্লগিং সাইট টুইটারে একটি টুইটে তিনি লিখেছেন, ‘পাকিস্তানে নিষিদ্ধ রইস?? ক্ষুব্ধ! হতবাক!’

গত ২৫ জানুয়ারি মুক্তির পর ভারতসহ বিশ্বের কয়েকটি দেশে সফলভাবে ব্যবসা করছে রইস। এযাবৎ বিশ্বব্যাপী ২৫০ কোটি রুপি আয় করেছে সিনেমাটি। এর মধ্যে পাকিস্তানই একমাত্র মুসলিম দেশ যারা সিনেমাটি নিয়ে আপত্তি করছে।

You Might Also Like