অনাচারে ভরে গেছে দেশ, ভালো আছে শুধু ক্ষমতাসীনরা: খালেদা জিয়া

বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া বলেছেন, “আমরা দেশে গণতন্ত্র চাই, বহুদলীয় গণতন্ত্র চাই। সবার অংশগ্রহণে যাতে দেশে একটা সুষ্ঠু অবাধ নির্বাচন হয় সেটি আমরা চাই। সেই নির্বাচন হতে হবে নির্দলীয় নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে। তা না হলে কিন্তু কখনোই নিরপেক্ষ নির্বাচন হবে না।”

শনিবার রাতে বিএনপির চেয়ারপারসনের গুলশান কার্যালয়ে বড়দিন উপলক্ষে খ্রিস্টান সম্প্রদায়ের সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময় অনুষ্ঠান শেষে তিনি এসব কথা বলেন। সাবেক প্রধানমন্ত্রী বলেন, “নিরপেক্ষ নির্বাচন না হলে দেশের মানুষ ভোটকেন্দ্রে যাবেন না, গত নির্বাচন তার প্রমাণ।”

২০১৪ সালে ৫ জানুয়ারির নির্বাচনের কথা তুলে ধরে বিএনপি চেয়ারপারসন বলেন, “ওই নির্বাচনে ক‘জন লোক গিয়েছিল ভোট দিতে? যদি সত্যিকার নির্বাচনই হয় তাহলে কী করে ১৫৪ জন বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হলো। এখন তারা চায় আবারো সেই রকমভাবে।”

তিনি বলেন, “দেশে কোনো ধর্মের মানুষই নিরাপদ নয়। সকলের ওপর অত্যাচার নিপীড়ন। ভালো আছে শুধু ক্ষমতাসীনরা, কারণ তারা দেশটাকে নিজস্ব সম্পত্তি মনে করে।”
বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া বলেছেন, “আমরা দেশে গণতন্ত্র চাই, বহুদলীয় গণতন্ত্র চাই। সবার অংশগ্রহণে যাতে দেশে একটা সুষ্ঠু অবাধ নির্বাচন হয় সেটি আমরা চাই। সেই নির্বাচন হতে হবে নির্দলীয় নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে। তা না হলে কিন্তু কখনোই নিরপেক্ষ নির্বাচন হবে না।”

শনিবার রাতে বিএনপির চেয়ারপারসনের গুলশান কার্যালয়ে বড়দিন উপলক্ষে খ্রিস্টান সম্প্রদায়ের সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময় অনুষ্ঠান শেষে তিনি এসব কথা বলেন। সাবেক প্রধানমন্ত্রী বলেন, “নিরপেক্ষ নির্বাচন না হলে দেশের মানুষ ভোটকেন্দ্রে যাবেন না, গত নির্বাচন তার প্রমাণ।”

২০১৪ সালে ৫ জানুয়ারির নির্বাচনের কথা তুলে ধরে বিএনপি চেয়ারপারসন বলেন, “ওই নির্বাচনে ক‘জন লোক গিয়েছিল ভোট দিতে? যদি সত্যিকার নির্বাচনই হয় তাহলে কী করে ১৫৪ জন বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হলো। এখন তারা চায় আবারো সেই রকমভাবে।”

তিনি বলেন, “দেশে কোনো ধর্মের মানুষই নিরাপদ নয়। সকলের ওপর অত্যাচার নিপীড়ন। ভালো আছে শুধু ক্ষমতাসীনরা, কারণ তারা দেশটাকে নিজস্ব সম্পত্তি মনে করে।”

You Might Also Like